1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. nrghor@gmail.com : Nr Gh : Nr Gh
  3. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
নাঙ্গলকোটে আদালতের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে মাদ্রাসার সম্পদ আত্মসাতের চেষ্টা - দৈনিক শ্যামল বাংলা
সোমবার, ১৫ অগাস্ট ২০২২, ১০:৫৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:

নাঙ্গলকোটে আদালতের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে মাদ্রাসার সম্পদ আত্মসাতের চেষ্টা

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৮ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ৯৫ বার

নিজস্ব প্রতিবেদক :
কুমিল্লা জেলার নাঙ্গলকোট উপজেলার দৌলখাঁড় ইউনিয়নের অন্তর্গত কান্দাল উত্তর পূর্ব পাড়া ফোরকানিয়া হাফিজিয়া মাদ্রাসার সম্পদ দখল করে আসছে কিছু অসাধু লোক। গত 19 ডিসেম্বর মহামান্য আদালতে এ বিষয়ের উপর একটি পিটিশন দাখিল করা হয়। আদালত সকল বিষয় বিবেচনা করে কান্দাল ইসলামিয়া কিন্ডারগার্টেন এর সকল কার্যক্রম স্থগিত করে। পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়ে যান নাঙ্গলকোট থানা পুলিশ।

উক্ত সম্পদের উপর কান্দাল আদর্শ ইসলামিয়া কিন্ডারগার্টেন পরিচালনায় করে আসছে। এই প্রতিষ্ঠানটি ব্যক্তিগত প্রতিষ্ঠান যা ফোরকানিয়া সম্পত্তির উপরে সাময়িক সময়ের জন্য ব্যবহার করার জন্য দেওয়া হয়েছে কিন্তু পরবর্তীতে তারা এখান থেকে স্কুলটি সরিয়ে নিতে অস্বীকৃতি জানান। দীর্ঘ পাঁচ বছর যাবত সামাজিকভাবে অনেকবারই বিষয়টি নিয়ে বসা হলেও তারা কোনো অবস্থাতেই প্রতিষ্ঠানটি সরাতে সম্মত হয়নি। আমাদের মুরুব্বীরা সম্পত্তি দান করেছেন একটি দ্বীনি প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করার জন্য কিন্তু এই মুনাফালোভী ব্যক্তি গুলোর কারণে উক্ত মাদ্রাসাটি বন্ধ হতে বাধ্য হয় এবং তারা ব্যক্তিগত অর্থায়নে কিন্টার গার্ডেন পরিচালনা করেন।

১৯৯১ সনে এই সম্পত্তিটি আমাদের মুরুব্বীরা ফোরকানিয়া হাফিজিয়া মাদ্রাসার জন্য ওয়াকফ করে দেন এবং এক‌ই সনে ফোরকানিয়া হাফিজিয়া মাদ্রাসার নামে সম্পত্তিটি বিএস খতিয়ানভুক্ত হয়। আমার দাদা এবং উনার ভাই মিলে 10 শতাংশ এবং বাকি 6 শতাংশ আমাদের বংশের বিভিন্ন মুরুব্বিরা দান করেন। সর্বমোট 16 শতাংশ সম্পত্তি। এরমধ্যে ১.৫ শতাংশ সম্পত্তি বেদখল হয়ে যায়। সামাজিক ভাবে সে জায়গাটি আমরা উদ্ধার করতে পারিনি। 16 শতাংশ জায়গা আমরা মাদ্রাসা এবং ঈদগা এর জন্য ব্যবহার করে আসছি কিন্তু কিন্টার গার্ডেন এর জন্য ফোরকানিয়া মাদ্রাসা বন্ধ হয়ে যায়। পক্ষ ফোরকানিয়া মাদ্রাসার সম্পত্তির উপরে একটি চায়ের দোকান স্থাপন করে এবং মাঠের অন্যপাশে আরেক পক্ষ আরেকটি ঘর নির্মাণ করে যদিও ঘরটি পুরোপুরি এখনো নির্মাণ শেষ হয়নি।

পুরো সম্পত্তি যখন বেদখলের সম্ভাবনা রয়েছে তখনই সামাজিক ভাবে সিদ্ধান্ত হয় আদালতের শরণাপন্ন হওয়া। আদালত উভয় পক্ষকে জানিয়েছে, ফোরকানিয়া হাফিজিয়া মাদ্রাসা সম্পত্তির উপর কিভাবে একটি প্রাইভেট কিন্টারগার্ডেন পরিচলন হয়ে আসছে। বিস্তারিত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন মহামান্য আদালত।

আমার প্রশ্ন অপপ্রচারকারীদের কাছে!
এই সম্পত্তিটি ফোরকানিয়া হাফিজিয়া মাদ্রাসাকে আমাদের মুরুব্বিরা দান করেছেন, আপনাদের প্রাইভেট কিন্টারগার্ডেন চালানোর জন্য নয়। আমরা সম্পত্তি দান করেও তাদের অপপ্রচারের কাছে ঠিক থাকতে পারছিনা এবং তারা কিসের উপর নির্ভর করে এসব অপপ্রচার চালাচ্ছে। অন্যর সম্পত্তি দখল করে যেখানে লজ্জা পাওয়ার কথা সেখানে তারা নির্লজ্জের মতো অপপ্রচার চালাচ্ছে। যে সকল ব্যক্তি এ সকল অপপ্রচারে অংশগ্রহণ করছেন, এসব করে সাময়িক আনন্দ পাবেন , চিরস্থায়ী নয়। 57 ধারা আপনাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হবে ইনশাল্লাহ।

যেসকল অমানুষের বাচ্চা অপপ্রচার চালাচ্ছেন, স্কুল তালা ঝুলানো থেকে শুরু করে অন্যান্য অপবাদ। এটি মহামান্য আদালতের আদেশে স্থগিত হয়েছে।

বিস্তারিত আসছে…

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম