1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
মাগুরায় কমছে না পেঁয়াজের দাম, দাম কমেছে পাতা ও কালির - দৈনিক শ্যামল বাংলা
রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ০২:৫৬ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
Mengenal Lebih Dekat Slot Fortune Dragon তীব্র গরম উপেক্ষা করে ভোটারদের দ্বারে দ্বারে যাচ্ছেন প্রার্থীরা “যোগ্য ব্যক্তিদের বেছে নিন”পছন্দমত প্রতিকে ভোট দিন! ঠাকুরগাঁওয়ের গড়েয়ায় জিংক সমৃদ্ধ চালের উপকারিতা বিষয়ে সচেতনতামূলক অনুষ্ঠান । ঠাকুরগাঁওয়ে টেকসই নদী ব্যবস্থাপনা সংক্রান্ত মতবিনিময় সভা । সাংবাদিকদের সাথে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী কাজী মোজাম্মেল হক এর মতবিনিময় চন্দনাইশে তুচ্ছ ঘটনায় সংঘর্ষে মহিলা ও শিশুসহ আহত-৫ চন্দনাইশ হাশিমপুরে চেয়ারম্যান প্রার্থী আবু আহমেদ জুনুর গণ-সংযোগ ৭২ লক্ষ টাকা ব্যয়ে সেতু নির্মাণ কার স্বার্থে চন্দনাইশ বরুমতি খালের উপর ৩ সেতু আছে সংযোগ সড়ক নেই ৬৫ জন নারী কর্মী পেল ৬৭ লক্ষ ২০ হাজার টাকা  চন্দনাইশে এলজিইডি’র নারী কর্মীদের সঞ্চয় ও সনদ বিতরণ  পশ্চিম সুলতানপুর স্কুলে সর্বজনীন পেনশন স্কিম উদ্বুদ্ধকরণ সভা অনুষ্ঠিত

মাগুরায় কমছে না পেঁয়াজের দাম, দাম কমেছে পাতা ও কালির

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯
  • ১৪২ বার

মাগুরা থেকে মোঃ সাইফুল্লাহ : মাগুরাতে পেঁয়াজের দাম তেমন না কমলে ও সবজি হিসেবে কমতে শুরু করেছে পেঁয়াজের কালি ও পাতার। আর আমদানি ও দেশি পুরাতন এবং নতুন (মুড়িকাটা)—এই ৩ ধরনের পেঁয়াজের মূল্যই স্হিতিশীল রয়েছে মাগুরার বাজারগুলোতে। গত১০ ডিসেম্বর মঙ্গলবার বিকেলে ও ১১ ডিসেম্বর সকালে মাগুরার বিভিন্ন বাজারে দেখা যায় আমদানি করা পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছে ২২০ টাকা কেজি দরে। পুরাতন পেঁয়াজ বাজারে বিক্রি হযেছে ২২০—২৪০ টাকা পর্যন্ত । এ দিকে গত সপ্তাহের চেয়ে সবজি হিসেবে বেশ কম দামে বিক্রি হযেছে নিত্যপ্রয়োজনীয় এই পণ্যটির পাতা ও কালির, মাগুরার বিভিন্ন বাজারে গত সপ্তাহে যেখানে প্রতি কেজি কালি বিক্রি হয়েছিলো ৪০—৫০ টাকায়, আর ডাটাসহ পাতা বিক্রি হযেছিলো ৩০—–৪০ টাকায়, সেখানে বর্তমানে প্রতি কেজি কালি বিক্রি হচ্ছে ২০—-৩০ টাকায়, আর ডাটাসহ পাতা বিক্রি হচ্ছে ১০—-১৫ টাকা কেজি দরে। মাগুরার পুরাতন ও নতুন বাজার, ভায়নামোড়,পুলিশ লাইন,ইটখোলা,ইছাখাদা ও শ্রীপুরের ট বাজার, খামার পাড়া ও লাঙ্গলবাঁধ বাজার ঘুরে ও খোঁজ নিয়ে এ তথ্য পাওয়া গেছে। শ্রীপুরের নবগ্রাম এলাকার পেঁয়াজ চাষি শফিকুল ইসলাম জানান —আমাদের মাঠের নতুন মুড়িকাটা পেঁয়াজ কয়েক দিনের মধ্যে পুরোদমে তোলা শুরু হয়ে যাবে, তখন বাজারে পেঁয়াজের মূল্য স্বাভাবিক হয়ে যাবে বলে আমরা আসা করছি।

এ দিকে এক তথ্যমতে সরকারি বিপণন সংস্থা ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)- বলছে, গত সপ্তাহের চেয়ে এই সপ্তাহে পেঁয়াজের মূল্য বেড়েছে। টিসিবির হিসাবে, গত এক মাসে আমদানি করা পেঁয়াজের মূল্য বেড়েছে ৩২ শতাংশ। এক বছরের ব্যবধানে এই পেঁয়াজের মূল্য বেড়েছে ৫২০ শতাংশ। তবে এক মাসের ব্যবধানে দেশি পেঁয়াজের মূল্য বেড়েছে ৯১ দশমিক ৮৪ শতাংশ। আর এক বছরের ব্যবধানে এই পেঁয়াজের মূল্য বেড়েছে ৬২৩ শতাংশ।

টিসিবি বলছে, ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে দেশি পেঁয়াজের মূল্য ছিল ৩০ থেকে ৩৫ টাকা। এক বছর পরে ২০১৯ সালের ডিসেম্বর নিত্যপ্রয়োজনীয় এই পণ্যটি বিক্রি হচ্ছে ২৩০ থেকে ২৪০ টাকা কেজি দরে। যার প্রভাব মাগুরাতেও পড়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম