1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. nrghor@gmail.com : Nr Gh : Nr Gh
  3. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
টংগীতে মামলা থেকে বাঁচতে আসামীর নয়া কৌশল - দৈনিক শ্যামল বাংলা
শুক্রবার, ১৯ অগাস্ট ২০২২, ০৬:০৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
ঠাকুরগাঁওয়ে বালিয়াডাঙ্গীতে ভাতিজিকে ধর্ষণের অভিযোগে ফুপার বিরুদ্ধে আদালতে মামলা । রাজশাহীতে র‍্যাবের হাতে দুই ভুয়া সাংবাদিক গ্রেফতার ইরানি স্কলার ড. সাইয়েদ আলী রেযা মাহদী মুসাভী জিরি মাদরাসা পরিদর্শন করেছেন ঠাকুরগাঁওয়ে দলিত আদিবাসীদের অনূকুলে সংবাদ প্রকশের লক্ষ্যে মতবিনিময় সভা । ঠাকুরগাঁওয়ে আমনের ভরা মৌসুমেও পানি নেই : ধানক্ষেত ফেটে চৌচির । চকোরিয়া প্রেসক্লাবে জাতীয় শোক দিবসের আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল সম্পন্ন ঠাকুরগাঁওয়ে মন্দিরে আবারও ১৪৪ ধারা জারি । অভিবাসনে পোকা আশুলিয়ায় যুবলীগের শোক দিবস পালিত খাদ্যর দিক দিয়া আমরা স্বয়ংসম্পূর্ণ : এমপি মিলাদ গাজী

টংগীতে মামলা থেকে বাঁচতে আসামীর নয়া কৌশল

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২৯ জানুয়ারী, ২০২০
  • ৭৮ বার

এফ এ নয়ন:
গাজীপুর মহানগরের টংগীতে গত ৪ ডিসেম্বর একটি ধর্ষণ চেষ্টা মামলা প্রত্যাহার করতে আসামীর নয়া কৌশল করে মামলার বাদিনীকে মামলা দিয়ে জেলহাজতে ভরার নয়া কৌশল অবলম্বন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
মামলার বাদিনী ডাক্তার নাজমা আক্তার অভিযোগ করে বলেন, আমার একটি পুরানো মামলার কাগজ পত্র আদালত থেকে সংগ্রহ করতে এডভোকেট সুমনের টংগী বাজারের চেম্বার যাই। সেখানে আমার দুইজন পরিচিত মহিলার সামনে সুমন আমার কাছে অনেক টাকা দাবী করেন। আমি অল্প খরচের কথা বললে সুমন সাথে সাথে আমাকে কু প্রস্তাব দেয় আমি তার প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় সুমন আমাকে জোর পুর্বক জড়িয়ে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা করে ব্যার্থ হয়। ওই রাতেই আমি টংগী পূর্ব থানায় সুমন কে আসামী করে একটা মামলা দায়ের করি। মামলার আসামী সুমন ৭দিন পালিয়ে থেকে উচ্চ আদালত থেকে অগ্রীম জামিনে এসে আমাকে ফাসাতে নয়া কৌশল খুজে। ঘটনার দিন আমি আমার মামলার খোজখবর নিতে আমি গত ১২ জানুয়ারী সকালে গাজীপুর আদালতের সামনে গেলে সুমন পরিকল্পনা অনুযায়ী আমাকে দেখে আজেবাজে কথা বলতে থাকে। একপর্যায়ে আমাকে উত্তেজিত করে তুলে। আমি তাহার আজেবাজে কথার জবাব দিতে গিয়ে তর্কবিতর্কে জড়িয়ে পড়ি। পরে আমি আমার পায়ের জুতা দিয়ে তার গালে তিন চারটি জুতা পিটা করি। এসময় সুমন পরিকল্পনা অনুযায়ী আমার জুতা পিটার ঘটনা তার মোবাইলে ভিডিও ধারন করে। পরে জয়দেবপুর থানা পুলিশ কে ডেকে আমাকে ধরিয়ে দেয়। আমি তাহার মামলায় জেল হাজতে থাকার সময় আমার স্বামীর নিকট এডভোকেট সুমনের মামলা প্রত্যাহারের প্রস্তাব দিয়ে জামিনের আশ্বাস দেয়। আমার জামিনের দিন সুমন ও আমার নিয়োগকৃত এডভোকেট সুমনের মামলা প্রত্যাহার শর্তে আমার জামিন মঞ্জুর করায়। আমি গত ২৫ জানুয়ারী জামিনে এসে পর দিন আমাকে জোর পূর্বক মামলা প্রত্যাহারের বিষয়ে জয়দেবপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করি। যাহার নাম্বার ১২০৬,
এই বিষয় এডভোকেট সুমন এর মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি তার সকল অভিযোগ অস্বীকার করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম