1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. nrghor@gmail.com : Nr Gh : Nr Gh
  3. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
টঙ্গীতে বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব শুরু শুক্রবার - দৈনিক শ্যামল বাংলা
শুক্রবার, ১৯ অগাস্ট ২০২২, ০৫:২৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
ঠাকুরগাঁওয়ে বালিয়াডাঙ্গীতে ভাতিজিকে ধর্ষণের অভিযোগে ফুপার বিরুদ্ধে আদালতে মামলা । রাজশাহীতে র‍্যাবের হাতে দুই ভুয়া সাংবাদিক গ্রেফতার ইরানি স্কলার ড. সাইয়েদ আলী রেযা মাহদী মুসাভী জিরি মাদরাসা পরিদর্শন করেছেন ঠাকুরগাঁওয়ে দলিত আদিবাসীদের অনূকুলে সংবাদ প্রকশের লক্ষ্যে মতবিনিময় সভা । ঠাকুরগাঁওয়ে আমনের ভরা মৌসুমেও পানি নেই : ধানক্ষেত ফেটে চৌচির । চকোরিয়া প্রেসক্লাবে জাতীয় শোক দিবসের আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল সম্পন্ন ঠাকুরগাঁওয়ে মন্দিরে আবারও ১৪৪ ধারা জারি । অভিবাসনে পোকা আশুলিয়ায় যুবলীগের শোক দিবস পালিত খাদ্যর দিক দিয়া আমরা স্বয়ংসম্পূর্ণ : এমপি মিলাদ গাজী

টঙ্গীতে বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব শুরু শুক্রবার

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ৯ জানুয়ারী, ২০২০
  • ৬০ বার

ফজলে মমিন:
শুক্রবার বাদ ফজর আম বয়ানের মধ্য দিয়ে টঙ্গীর কহর দরিয়া খ্যাত তুরাগ নদের তীরে শুরু হচ্ছে মুসলিম বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় সমাবেশ ৫৫তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব। এরই মধ্যে প্রচন্ড শীতকে উপেক্ষা করে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে তাবলিগ জামাত অনুসারি মুসল্লিরা নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যসামগ্রী নিয়ে ইজতেমা ময়দানে জড়ো হচ্ছেন। ইজতেমাকে সামনে রেখে এখন লাখো মুসল্লির পদচারণায় মুখরিত হয়ে উঠছে তুরাগ নদের পূর্ব তীর। মুসল্লিদের আগমন উপলক্ষে শিল্পনগরী টঙ্গী সেজেছে নতুন সাজে। অসংখ্য মুসল্লির পদচারণায় যেন ফিরে পেয়েছে নতুন প্রাণ। শুক্রবার অনানুষ্ঠানিকভাবে শুরু হয়ে ১২ জানুয়ারি রোববার জোহরের নামাজের পূর্বে যে কোন এক সময় আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে মুসলিম জাহানের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় মিলন মেলা বিশ্ব তাবলিগ জামাতের বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্বের সমাপ্তি ঘটবে। এরই মধ্যে ইজতেমার সার্বিক প্রস্তুতির কাজ সম্পন্ন হয়েছে।

১৬০ একর জমির ওপর নির্মিত সুবিশাল প্যান্ডেলের কাজ, খুঁটিতে নম্বর প্লেট, খিত্তা নম্বর, জুড়নেওয়ালি জামাতের কামরা, তাশকিল কামরা, হালকা নম্বর বসানো, দৈর্ঘ্যে ৪০ ফুট প্রস্থে ২৬ ফুট বয়ান মঞ্চ নির্মাণসহ যাবতীয় কাজ প্রায় শেষ হয়েছে। ৫৫তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম ধাপে ৮৭টি খিত্তাসহ ৬টি সংরক্ষিত খিত্তা স্থাপন করা হয়েছে। দেশের সকল জেলার ধর্মপ্রাণ মুসল্লিসহ বিদেশী মেহমান ইজতেমায় অংশগ্রহণ করবেন। আগত মুসল্লিদের সুষ্ঠুভাবে বয়ান শোনার জন্য পুরো মাঠে শব্দ প্রতিধ্বনি রোধক প্রায় ২’শ ৪০টি বিশেষ ছাতা মাইক, ৫০টি ইউনিসেফ মাইকসহ ৪৮০ মাইক স্থাপন করা হয়েছে। ইজতেমা ময়দানে মুসল্লিদের অবাধ প্রবেশ নিশ্চিত করতে সেনাবাহিনীর ইঞ্জিনিয়ারিং কোরের সদস্যরা তুরাগ নদীতে ৭টি ভাসমান পন্টুন সেতু নির্মাণ করেছেন। এছাড়াও আর্ন্তজাতিক নিবাসে মেহমানদের রান্না-বান্নাসহ অভ্যন্তরীন মুসল্লিদের জন্য আশপাশের এলাকায় স্থাপিত বিভিন্ন হোটেল রেস্তোয়ায় ফুড পয়জনিং রোধে বিশেষ নজর রাখার জন্য বলা হয়েছে।

বিশ্ব ইজতেমার নিয়ম অনুসারে শুক্রবার বাদ ফজর আম বয়ানের মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিক বয়ান শুরু হওয়ার কথা থাকলেও বুধবার ইজতেমার দায়িত্বে নিয়োজিত মুসল্লিদের উদেশ্যে বিশেষ বয়ান করেন বাংলাদেশের মাওলানা মো. রবিউল হক। আগত মুসল্লিরা যাতে কষ্ট না পায়, তাদের যাতে কোন প্রকার সমস্যা না হয় সে দিকে নজর রাখার জন্য তিনি ইজতেমার দায়িত্বে নিয়োজিত মুসল্লিদের আহবান জানান।

এদিকে সকাল থেকে গাজীপুরে কয়েক দফা বৃষ্টি হওয়ায় দুর্ভোগে পড়েছেন ইজতেমায় আগত মুসল্লিরা। ইজতেমায় যোগ দিতে গত বুধবার থেকেই দলে দলে ইজতেমা ময়দানে আসছেন তারা। মুসল্লিদের এ ঢল বৃহস্পতিবার দিনব্যাপী দেখা গেছে। শুক্রবার সকাল পর্যন্ত মুসল্লিদের এই ভিড় অব্যাহত থাকবে। বিভিন্ন জেলা থেকে বাসে করে এসব মুসল্লি টঙ্গী স্টেশন রোড, চেরাগআলী, উত্তরার কামারপাড়া এলাকায় নেমে হেঁটে ময়দানে এসে নিজ নিজ জেলার খিত্তায় অবস্থান নিচ্ছেন।

বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে একপশলা হালকা বৃষ্টি হয়ে যায় টঙ্গীতে। এতে মুসল্লিরা কিছুটা সমস্যায় পড়েন। সকাল থেকে থেমে থেমে বৃষ্টি হচ্ছে।

গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের গৃহীত কার্যক্রম :
গাজীপুর সিটি করপোরেশন কর্তৃপক্ষ দেশী-বিদেশী মুসল্লীদের অভিনন্দন ও স্বাগত জানানোর জন্য ১৫টি তোরণ নির্মাণ করেছেন। ইজতেমায় আগত মুসল্লীদের ওজু, গোসল, পয়ঃনিষ্কাশন ও সুপেয় পানি সরবরাহের জন্যে ইজতেমা ময়দানে ১৩টি গভীর নলক‚পের দ্বারা ১৮.৫০ কিলোমিটার পাইপ লাইনের মাধ্যমে প্রতিদিন ৩ কোটি ৫৫ লাখ গ্যালন সুপেয় বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ নিশ্চিত করা হঢেছে। বহুতলীয় দালানে প্রায় ৮ হাজার ৩‘শ ৩১ টি স্থায়ী, ৪‘শ টি অস্থায়ী ও বিদেশী মেহমানদের জন্য ১‘শ ৭৫টি টয়লেট স্থাপন করা হয়েছে। এদের মধ্যে নষ্ট ও ক্ষতিগ্রস্থ অজু গোসলখানা এবং টয়লেটগুলো ইতোমধ্যে সংস্কার করা হয়েছে। এছাড়াও ব্যক্তি উদ্যেগে ইজতেমাস্থলের আশপাশে প্রায় ২ সহ¯্রাধিক কাঁচা অস্থায়ী টয়লেট স্থাপন করা হয়েছে। ময়দানের চাহিদা মোতাবেক ৬‘শ ড্রাম বিø¬চিং পাউডার ও ২ হাজার লিটার কেরোসিন সরবরাহ করা হয়েছে। ৬০ টি ফগার মেশিনে মশক নিধনের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। তুরাগ নদে নিরাপত্তা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে নৌযান চলাচল বন্ধের লক্ষ্যে টঙ্গী ব্রিজ ও কামাড়পাড়া ব্রিজের নিচে বাঁশ দ্বারা ৩টি নিরাপত্তা বেষ্টনী নির্মাণ করা হয়েছে। ইজতেমাস্থল ও আশপাশের এলাকায় মুসল্লিদের চলাচলের জন্য ৭৫০টি বৈদ্যুতিক বাতি, ১‘শ ১টি ল্যাম্পপোষ্টের মাধ্যমে ৫‘শটি সড়ক বাতি লাগানো হয়েছে। ইজতেমায় আগত মুসল্লিদের স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করতে ৪৫ টি চিকিৎসা কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে। ইজতেমা চলাকালে প্রতিদিন ৬০টি গার্বেজ ট্রাকের মাধ্যমে দিন-রাত বর্জ্য অপরাসণ কার্যক্রম চালানো হবে। ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের টঙ্গী থেকে চান্দনা-চৌরাস্তা পর্যন্ত মহাসড়কের দু’পাশে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ, রাস্তার উপর পার্কিং করা গাড়ি সরানোর ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। সিনেমা হলগুলো বন্ধ এবং ইতিমধ্যে রাস্তার দুই পাশে দেয়ালের অশ্লীল পোষ্টার অপসারণ করা হয়েছে। ইজতেমা মাঠের চারপাশের রাস্তার ধূলাবালি নিয়ন্ত্রনে পানি ছিটানোর জন্য গাসিক এর পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানানো হয়েছে। ইজতেমাস্থল ও আশপাশের সার্বিক নিরাপত্তা মনিটরিং করার লক্ষ্যে ৮টি কন্ট্রোল রুম, পুলিশের জন্য ১৫টি ও র‌্যাবের জন্য ১০টি ওয়াচ টাওয়ার স্থাপন করা হয়েছে। এছাড়া ইজতেমা ময়দানের চার পাশের সকল অবৈধ স্থাপনা ও দোকানপাট জেলা প্রশাসনের নেতৃত্বে উচ্ছেদ করা হচ্ছে। যে গুলো বাকি রয়েছে সেগুলো উচ্ছেদ অভিযান চলমান রয়েছে। এসব বিষয় মনিটরিং করার জন্য সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর, কর্মকর্তা ও কর্মচারির সমন্বয়ে ১৪টি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

বিশেষ ট্রেন ১৬টি : টঙ্গী রেলওয়ে জংশনের ষ্টেশন মাষ্টার মো. হালিমুজ্জামান জানান, এবারের বিশ্ব ইজতেমায় মুসল্লিদের নির্বিঘেœ যাতায়াতের জন্য ১৬টি বিশেষ ট্রেন পরিচালনা করবে বাংলাদেশ রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। ১০ জানুয়ারি থেকে শুরু করে ১৯ জানুয়ারি পর্যন্ত ঢাকা অভিমুখী সব ট্রেন ৫মিনিট পর্যন্ত টঙ্গী ষ্টেশনের দাঁড়াবে। সাপ্তাহিক বন্ধের সকল ট্রেনও ওই সময়ে চলাচল করবে। এছাড়াও প্রতিটি ট্রেনে অতিরিক্ত বগি সংযোজন কার হচ্ছে।

ময়দানে প্রথম পর্বে খিত্তাওয়ারি মুসল্লিদের অবস্থান : এবছর প্রথম পর্বের বিশ্ব ইজতেমায় আগত ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা যেসমস্ত খিত্তায় অবস্থান করবেন তা হলো-গাজীপুর (খিত্তা-১), টঙ্গী (খিত্তা-২,৩ ও ৪), ঢাকা (খিত্তা-৫-১৯ ও ২৪, ২৫, ২৭, ২৮, ২৯, ৩২), রাজশাহী (খিত্তা-২০), নওগাঁ (খিত্তা-২১), নাটোর (খিত্তা-২২), চাপাই নবাবগঞ্জ (খিত্তা-২৩), সিরাজগঞ্জ (খিত্তা-২৬), টাঙ্গাইল (খিত্তা-৩০), নড়াইল (খিত্তা-৩১), রংপুর (খিত্তা-৩৩), নীলফামারী (খিত্তা-৩৪), কুড়িগ্রাম (খিত্তা-৩৫), লালমনিরহাট (খিত্তা-৩৬), গাইবান্ধা (খিত্তা-৩৭), মুন্সিগঞ্জ (খিত্তা-৩৮), মাগুরা (খিত্তা-৩৯), ঝিনাইদহ (খিত্তা-৪০), বগুড়া (খিত্তা-৪১), নারায়নগঞ্জ (খিত্তা-৪২), ফরিদপুর (খিত্তা-৪৩), যশোর (খিত্তা-৪৪), সাতক্ষীরা (খিত্তা-৪৫), বাগেরহাট (খিত্তা-৪৬), নরসিংদী (খিত্তা-৪৭), ভোলা (খিত্তা-৪৮), জামালপুর (খিত্তা-৪৯), ময়মনসিংহ (খিত্তা-৫০, ৫১), মেহেরপুর (খিত্তা-৫২), চুয়াডাঙ্গা (খিত্তা-৫৩), নেত্রকোনা (খিত্তা-৫৪), কিশোরগঞ্জ (খিত্তা-৫৫), গোপালগঞ্জ (খিত্তা-৫৬), বরিশাল (খিত্তা-৫৭), রাজবাড়ি (খিত্তা-৫৮), শেরপুর (খিত্তা-৫৯), শরীয়তপুর (খিত্তা-৬০), মাদারীপুর (খিত্তা-৬১), সিলেট (খিত্তা-৬২), কক্সবাজার (খিত্তা-৬৩), রাঙ্গামাটি (খিত্তা-৬৪), খাগড়াছড়ি (খিত্তা-৬৫), সুন্দরবন (খিত্তা-৬৬), ফেণী (খিত্তা-৬৭), নোয়াখালী (খিত্তা-৬৮), ল²ীপুর (খিত্তা-৬৯), চাঁদপুর (খিত্তা-৭০), বি.বাড়ীয়া (খিত্তা-৭১), খুলনা (খিত্তা-৭২), পটুয়াখালী (খিত্তা-৭৩), বরগুনা (খিত্তা-৭৪), চট্টগ্রাম (খিত্তা-৭৫), কুমিল্লা (খিত্তা-৭৬), পিরোজপুর (খিত্তা-৭৭), ঝালকাঠি (খিত্তা-৭৮), সুনামগঞ্জ (খিত্তা-৭৯), হবিগঞ্জ (খিত্তা-৮০), মৌলভীবাজার (খিত্তা-৮১), পাবনা (খিত্তা-৮২), ঠাকুরগাঁও (খিত্তা-৮৩), পঞ্চগড় (খিত্তা-৮৪), দিনাজপুর (খিত্তা-৮৫), জয়পুরহাট (খিত্তা-৮৬), কুষ্টিয়া (খিত্তা-৮৭)। রাঙ্গামাটি, খাগড়াছড়ি, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, সুনামগঞ্জ, হবিগঞ্জ, মৌলভীবাজার, পাবনা, ঠাকুরগাঁও, পঞ্চগড়, দিনাজপুর-এর খিত্তাগুলোর অবস্থান তুরাগ নদের পশ্চিমপাড়ে। এছাড়াও ৮৮, ৮৯, ৯০, ৯১, ৯২ ও ১৫(খ) নং খিত্তাগুলো সংরক্ষিত হিসেবে রাখা হয়েছে। ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা তাদের নিজ নিজ খিত্তায় অবস্থান নিয়ে ইবাদত বন্দেগীতে মশগুল থাকবেন।

ইজতেমা আয়োজক কমিটির শীর্ষ মুরুব্বী প্রকৌশলী মো. মাহফুজ হান্নান জানান, ইতিমধ্যে ইজতেমা ময়দানের প্রস্তুতির কাজ প্রায় ৯৫ ভাগ সম্পন্ন হয়েছে। বাকী টুকিটাকি যা আছে তা বৃহস্পতিবার সকালের মধ্যে শেষ হয়ে যাবে। ১০ থেকে ১২ জানুয়ারী ইজতেমায় অংশগ্রহণকারী ধর্মপ্রাণ মুসল্লি¬রা ময়দানে স্ব-স্ব খিত্তায় এসে অবস্থান নিচ্ছেন। ইজতেমার আয়োজক তাবলীগ জামাতের স্বেচ্ছাসেবীদের প্রস্তুতি ছাড়াও ডেসকো, তিতাস, ওয়াসাসহ সরকারের সংশি¬¬ষ্ট সেবাদানকারী সংস্থাগুলোও তাদের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছেন। ১০ জানুয়ারি শুরু হয়ে ১২ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মধ্যদিয়ে শেষ হবে আলমী শূরার তত্ত¡াবধানে আয়োজিত তিনদিনের বিশ্ব ইজতেমা। তিনি আরও জানান, আগত ইজতেমাকে কেন্দ্র করে টঙ্গীসহ বিভিন্ন এলাকার এক শ্রেনীর পাইকারী মজুদদার ব্যবসায়ীরা দ্বি-গুন অর্থ উর্পাজনের প্রত্যাশায় কাঁচা তরী-তরকারীসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পন্যদ্রব্য সামগ্রীর মূল্য বৃদ্ধি করে বাজারজাত করছে। বিশ্ব ইজতেমা আয়োজক কমিটির মুরব্বীরা এসব কালো বাজারী ব্যবসায়ীদের চিহ্নিত করে তাদের নিয়ন্ত্রনে প্রশাসনের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

গাজীপুর মেট্রোপলিটনের পুলিশ কমিশনার মো. আনোয়ার হোসেন জানান, নিরাপদ পরিবেশে ইজতেমা আয়োজনে পুলিশের পক্ষ থেকে সার্বিক প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। নিরাপত্তার জন্য গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের পাশা পাশ জেলা পুলিশ, র‌্যাব ও আনছার বাহিনী থাকবে। এ বারের ইজতেমায় সাদা পোশাকের পুলিশ সদস্য থাকবে তার সাথে ৫ স্থরের নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হবে। কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়া এবার ইজতেমা সফলভাবে সম্পন্ন হবে। তিনি আরও বলেন, রাস্তায় কোন দোকান বসতে পারবেনা। ইতিমধ্যে ফুটপাত ও রাস্তার সব দোকান উঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

গাজীপুর সিটি মেয়র মো. জাহাঙ্গীর আলম জানান, টঙ্গীর বিশ্বইজতেমার সকল কার্যক্রম সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন করার লক্ষে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ন সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে। এসব সিদ্ধান্তের মধ্যে ইজতেমার প্রস্তুতিসহ এলাকার পরিবেশ উন্নয়ন, ইজতেমা মাঠে যাতায়াতের সুবিধার্থে রাস্তার দু’পাশে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা স্থাপনা, দোকানপাট উচ্ছেদের ব্যবস্থা করা, মশক নিধন, অশ্লীল পোষ্টা-ব্যানার অপসারণসহ অন্যান্য কাজ রয়েছে।

এব্যাপারে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী, স্থানীয় এমপি মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেন, বিশ্ব ইজতেমা সফল করতে এবং মুসল্লিদের সেবা প্রদানে সরকারের পক্ষ থেকে সার্বিক সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম