1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. nrghor@gmail.com : Nr Gh : Nr Gh
  3. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
নোয়াখালীতে অর্থ আত্মসাৎতের অভিযোগে সোনালি ব্যাংকের ব্যবস্থাপকসহ আটক ২ - দৈনিক শ্যামল বাংলা
রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ০৫:৩৯ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
দরিদ্র মানুষের মাঝে সৈয়দপুরে জামায়াতে ইসলামী শীতবস্ত্র বির্তরণ রাউজান দলিল লিখক সমিতির সভাপতি অজিত কুমার দে- সম্পাদক মিজানুর রহমান বিএনপি না এলেও নির্বাচন হয়ে যাবে- নজিবুল বশর এমপি মানিকছড়ি উপজেলা বিএনপি কাউন্সিল-২০২২অনুষ্ঠিত সৈয়দপুরে থানা ওপেন হাউস ডে অনুষ্ঠিত রাউজানে কৃষক-কৃষাণি’র মুখে হাসি ফোটাতে ধান কেটে দিলো কৃষক লীগ আনোয়ারায় তোষামোদকারী সাংবাদিকতা ছেড়ে আপোষহীন সাংবাদিকতার আহবান ঠাকুরগাঁওয়ে বিনামূল্যে চক্ষু শিবির । ঠাকুরগাঁওয়ে রাণীশংকৈল ও বালিয়াডাঙ্গী ৪৭ টি ভাটাতে ইট পোড়ানো প্রস্তুতি সম্পন্ন হলেও আগুন জ্বালানো অনিশ্চিত ! নোয়াখালীতে ৯ টি শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম হচ্ছে- যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

নোয়াখালীতে অর্থ আত্মসাৎতের অভিযোগে সোনালি ব্যাংকের ব্যবস্থাপকসহ আটক ২

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১৫ জানুয়ারী, ২০২০
  • ৮৮ বার

মাহবুবুর রহমান: নোয়াখালীতে সোনালী ব্যাংক চরবাটা শাখার ব্যবস্থাপক মোহাম্মদ নূর নবীকে পরস্পর যোগসাজশে ক্ষমতার অপব্যবহারের মাধ্যমে প্রতারণা ও জাল-জালিয়াতির আশ্রয় নিয়ে ভূয়া ঋণবন্ড তৈরী করে ১৪জন গ্রাহকের নামে সাত লক্ষ টাকা আত্মসাৎ করায় তাকে আটক করেছে নোয়াখালী দুর্নীতি দমন কমিশন।

বুধবার দুপুরে তাদেরকে আটক করা হয় আটকের পর জিজ্ঞাসাবাদ করে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয় । আটককৃতরা হলেন,নোয়াখালী চরজব্বর থানার চরবাটা গ্রামের মৃত মকবুল আহমেদ চৌধুরীর ছেলে সাবেক সোনালী ব্যাংক চরবাটা শাখার ব্যবস্থাপক মোঃ নুর নবী চৌধুরী, শহীদ উদ্দিন মিয়ার ছেলে মহিউদ্দিন ভূঁইয়া, নুরুজ্জামান ওরফে বাচ্ছু মিয়া ছেলে মোঃ সিরাজুল ইসলাম।

দুদক সূত্রে জানা যায় , সোনালী ব্যাংক চরবাটা শাখার ব্যবস্থাপক মোঃ নুর নবী চৌধুরী ২০১০-২০১৪ সময়ে দায়িত্বকালীন ১৪ জন গ্রাহকের নামে স্থানীয় দালাল ২-৩নং আসামির মাধ্যমে ভূয়া ঋণবন্ড তৈরীপূর্বক স্বাক্ষর জাল করে ভূয়া ঋণ বিতরণ দেখিয়ে অর্থ আত্মসাৎ করে।

যাদের নামে টাকা আত্মসাৎ করে তারা হলেন চরজব্বর থানার চরবাটা গ্রামের, ইব্রাহিম খলিল, পিতা: আবুল খায়ের, জনাব সুক্কুর আহমদ, পিতা: মোজাক্কের হোসেন, বিপ্লব চন্দ্র দাস, পিতা: অরুন চন্দ্র, মোঃ আঃ মালেক, পিতা: মোঃ আলম, আঃ রব, পিতা: আঃ ছোবাহান,
,মোঃ আলাউদ্দিন, পিতা: আব্দুর রব, আবুল কালাম, পিতা: মকবুল আহমদ, আবুল কাসেম, পিতা: তমামুল হক,খবির আহাম্মদ, পিতা: নজির আহাম্মদ, নুর নবী, পিতা: মকবুল আহমদ, আবুল খায়ের, পিতা: রায়হান আলী
,মোঃ বাবুল, পিতা: আবুল খায়ের, মোঃ মহিব উল্যা, পিতা: মৃত জেবল হক, আলী আক্কাস, পিতা: আব্দুর রব প্রমুখ এদের প্রত্যেকের নামে ৫০,০০০ টাকা করে ঋণ আদায় দেখানো হয়।

এ বিষয়ে নোয়াখালী দূর্ণীতি দমন কমিশন এর সহকারী পরিচালক সুবেল আহমেদ জানান, আমরা তাদের বিরুদ্ধে ১৪ জন গ্রাহকের নামে অর্থ আত্মসাৎতের অভিযোগ পাওয়ায় ৪০৯/৪২০/৪৬৭/৪৬৮/৪৭১/১০৯ ধারা তৎসহ ১৯৪৭ সালের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ৫(২) ধারায় শাস্তিযোগ্য অপরাধ করেছেন বিধায় তাদের বিরুদ্ধে বিজ্ঞ সিনিয়র বিশেষ জজ আদালতে মামলা দায়ের করা হয়।

তিনি আরো জানান, আমরা বিষয়টি সোনালী ব্যাংক লিঃ, প্রধান কার্যালয়,ঢাকার অডিট এন্ড ইন্সপেকশন ডিভিশন-২ কর্তৃক সম্পাদিত চরবাটা শাখা, নোয়াখালীর এর উপর ১৩/০২/১৯ তারিখ ভিত্তিক বিশেষ নিরীক্ষা প্রতিবেদনের ২নং পাতায় ভূয়া ঋণ বিতরণের বিষয়টি ওঠে আসার সম্পর্কে তথ্য পাই ।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম