1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
সুন্দরগঞ্জের ব্যবসায়ীকে ক্রসফায়ারের হুমকী: ২ পুলিশকর্তাসহ অভিযুক্ত ৬ - দৈনিক শ্যামল বাংলা
শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৪:৪৩ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
সাবেক ওয়ার্ড সভাপতি তপনের চতুর্থ মৃত্যুবার্ষিকী নকলা উপজেলা নির্বাচন : চেয়ারম্যান সোহাগ, ভাইস চেয়ারম্যান কনক ও লাকী বিজয়ী মাগুরায় আল-আমিন ট্রাস্টের উদ্যোগে  এ+প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা প্রদান অনুষ্ঠিত নবীগঞ্জে জামানত হারিয়েছেন ৯জন প্রার্থী চন্দনাইশ দোহাজারীতে শহীদ হালিম-লিয়াকত স্মৃতি বৃত্তি পরীক্ষার পুরষ্কার বিতরণ চন্দনাইশ বরকলে চেয়ারম্যান প্রার্থী আবু আহমেদ জুনুর গণ-সংযোগ ভুক্তভোগী পরিবারের সংবাদ সম্মেলন সেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি সুমনের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসী হামলার অভিযোগ চন্দনাইশে বুদ্ধ পূর্ণিমা উপলক্ষে শান্তি শোভাযাত্রা চন্দনাইশে চেয়ারম্যান প্রার্থী জসিম উদ্দীনের বৈলতলীতে গণ-সংযোগ ঠাকুরগাঁওয়ে বালিয়াডাঙ্গীতে ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান ও রাস্তা সংস্কারে জন্য ১৫ লক্ষ টাকা অনুদান বিতরণ করেছেন – সুজন এমপি

সুন্দরগঞ্জের ব্যবসায়ীকে ক্রসফায়ারের হুমকী: ২ পুলিশকর্তাসহ অভিযুক্ত ৬

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২ মার্চ, ২০২০
  • ১৫২ বার

অানোয়ার হোসেন শামীম, গাইবান্ধা :গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের পূর্ব শিবরাম গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক তরফদার নামের এক ব্যবসায়ীকে স্বাক্ষীর নামে নোটিশ প্রদানের তুলি নিয়ে গিয়ে ক্রস ফায়ারে হত্যার ভয়-ভীতি দেখিয়ে অমানবিক নির্যাতন অতঃপর চেকসহ স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর গ্রহণ পূর্বক নানাভাবে হয়রাণির অভিযোগ রয়েছে।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, বিগত ২০১৯ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর সকালে জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (‘এ’ সার্কেল) আব্দুল আউয়ালের কার্যালয়ে একটি সাক্ষ্য প্রদানের নোটিশ প্রদান করার পর অভিযোগকারী ব্যবসায়ী আব্দুর রাজ্জাক তরফদারকে তাঁর বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে যান সুন্দরগঞ্জ থানাধীন বামনডাঙ্গা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এএসআই মজিবুর রহমান। যার স্মারক নং- “এ” সার্কেল/গাইঃ/১০২৮(২)/১, তারিখ: ২১/০৯/২০১৯খ্রিঃ। এরপর ব্যবসায়ী আব্দুর রাজ্জাক তরফদারকে রহস্যজনক কারণে অকথ্য নির্যাতন, ১’শ টাকা করে মূল্যের ৩টি নন-জুডিশিয়াল ফাঁকা স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর ও ইসলামী ব্যাংক-বাংলাদেশ লিঃ, সুন্দরগঞ্জ শাখার অনুকুলে ৩০০ হিসাব নম্বরের অধীনে প্রদত্ত ৭৪১০৫৯৬ ও ৭৪১০৫৯৫ চেক বহির ২টি পাতায় স্বাক্ষর গ্রহণ করেন। ঘটনার সঙ্গে জড়িত অপর ৪ ব্যক্তি হলেন, উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের রামভদ্র (কদমতলা) গ্রামের ইমান আলী মামুন (৪৭), শাহজাহান মিয়া (৫২), আসাদুজ্জামান প্রামাণিক ওরফে স্বাধীন (৪৫) ও বেলাল মিয়া (৪৬)। এ ঘটনার পর প্রাণে বেঁচে এসে আব্দুর রাজ্জাক তরফদার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (‘এ’ সার্কেল) আব্দুল আউয়াল, এএসআই মজিবুর রহমানসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জন নিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব ও জেলা পুলিশ সুপারের দপ্তর বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ দায়ের করেছেন। এরআগে বিজ্ঞ আইনজীবির মাধ্যমে ব্যবসায়ী তার স্বাক্ষরীত উক্ত চেক, স্ট্যাম্পগুলো উদ্ধারসহ স্বাক্ষীর নোটিশ প্রদানের মাধ্যমে তুলি নিয়ে গিয়ে অকথ্য নির্যাতন অতঃপর পিস্তল ঠেকিয়ে ক্রসফায়ারে হত্যার ভয় দেখিয়ে সাক্ষর গ্রহণের কারণ জানতে চেয়ে উকিল নোটিশ প্রদান করেন। এ ব্যপারে অভিযুক্ত শাহাজাহান মিয়ার সঙ্গে কথা বলার চেষ্টা করা হলে তিনি তাঁর মোবাইল ফোন কল গ্রহণ করেননি। এএসআই মুজিবুর রহমানের সঙ্গে (রবিবার রাত ৮.২৪ ঘটিকায়) মোবাইল ফোনে এ ব্যপারে জানতে প্রশ্ন করা হলে তিনি পরবর্তীতে কথা বলবেন বলে জানান। পুলিশ সুপার বরাবরে অভিযোগের প্রেক্ষিতে দায়িত্ব প্রাপ্ত তদন্তকারী কর্মকর্তা, গাইবান্ধা পুলিশ লাইন্সের ইন-সার্ভিস ট্রেনিং সেন্টারে দায়িত্বরত পুলিশ সুপার পদে পদোন্নোতিপ্রাপ্ত আবু সাঈম প্রধান জানান, আব্দুর রাজ্জাক তরফদারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে ‘সাক্ষ্য গ্রহণ করেছি এখনো কিছু করি নাই। তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করা হলে- তা জানবেন’। উক্ত তদন্তকরী কর্মকর্তার স্মারক নং- ৩৩৩/ডি, তারিখ ০৪/০২/২০২০ বেতার বার্তা নং ৩৪/ইসা।
অভিযোগকারী আব্দুর রাজ্জাক তরফদার এ ব্যপারে ন্যায় বিচার পাবার আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, একটি গুরুত্বপূর্ণ ও রহস্যজনক কারণে অভিযুক্ত পুলিশ কর্মকর্তাদ্বয় অপর অভিযুক্ত ইমান আলী মামুনের পক্ষ অবলম্বন করেছেন। সে বিষয়টি খতিয়ে দেখার অনুরোধ জানিয়ে তিনি অপর প্রশ্নের জবাবে বলেন, ইমান আলী মামুনের এ ঘটনাই নুতন নয়। আর সে বিষয়ে তিনি অভিযোগপত্রে উল্লেখ করেছেন বলে জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম