1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. nrghor@gmail.com : Nr Gh : Nr Gh
  3. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
চট্টগ্রামের পরীর পাহাড়ে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ - দৈনিক শ্যামল বাংলা
শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৩৫ অপরাহ্ন

চট্টগ্রামের পরীর পাহাড়ে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

মুজিব উল্ল্যাহ্ তুষার :
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১২ বার

চট্টগ্রামের ঐতিহাসিক পরীর পাহাড়ে ১২ তলার দুটি ভবন নির্মাণ করতে গিয়ে এখন জেলা আইনজীবী সমিতির আগের নির্মাণ করা পাঁচটি ভবনসহ সেখানে গড়ে উঠা সব অননুমোদিত ভবন অপসারণের মুখে পড়তে যাচ্ছে। ইতোমেধ্যে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে জারি করা নির্দেশনায় বলা হয়েছে— পরীর পাহাড়ে বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়, জেলা প্রশাসকের কার্যালয় এবং ৭১টি আদালত ছাড়া বাদবাকি সব স্থাপনাই উচ্ছেদ করতে। চট্টগ্রামের প্রশাসন সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়ার পথে আগালেও জেলা আইনজীবী সমিতি বলেছে আইনজীবী ভবন রক্ষায় তারা আইনি লড়াইয়ে নামবে।
মন্ত্রী পরিষদ বিভাগের গোপনীয় প্রস্তাবে বলা হয়েছে যে, চট্টগ্রাম নগরের কেন্দ্রস্থলে পাহাড়ের চূড়ায় প্রশাসনিক প্রাণকেন্দ্র চট্টগ্রাম কোর্ট বিল্ডিংয়ে অবস্থিত। এ অংশে রয়েছে বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়, জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, জেলা ও দায়রা জজ আদালতসহ সর্বমোট ৭১ টি আদালত। জেলা প্রশাসকের নামে এখানে সরকারের ১ নম্বর খাস খতিয়ানভুক্ত ১১.৭২ একর জায়গা রয়েছে। সরকারি ভবনের বাইরে ১ নম্বর খাস খতিয়ানভুক্ত জায়গায় ইতোমধ্যে চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতি পাহাড় এবং টিলা কেটে অবৈধভাবে ৫ টি ঝুঁকিপূর্ণ বহুতল ভবন নির্মাণ করেছে বলে উল্লেখ করে মন্ত্রী পরিষদ বিভাগের রিপোর্টে বলা হয়েছে, এ সকল স্থাপনাকে পাহাড় ধস, ভূমিকম্প, অগ্নিকাণ্ড ইত্যাদির জন্য অতি ঝুঁকিপূর্ণ স্থাপনা হিসেবে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স কর্তৃপক্ষ চিহ্নিত করেছে। জেলা আইনজীবী সমিতি আবারও সরকারের কোনো সংস্থার অনুমোদন ব্যতিরেকে ‘বঙ্গবন্ধু আইনজীবী ভবন’ ও ‘একুশে আইনজীবী ভবন’ নামক দুইটি ১২ তলা বিশিষ্ট ভবন নির্মাণের জন্য দরপত্র আহ্বান করে এবং ৬০০ টি চেম্বার বরাদ্দের জন্য আইনজীবীদের নিকট থেকে ২ লক্ষ টাকা করে ১২ কোটি টাকা আদায় করেছে।
গোপনীয় রিপোর্টে আরো বলা হয় যে, এছাড়াও কোর্ট বিল্ডিংয়ের চতুর্পার্শ্বে আইনজীবীগন অর্ধশতাধিক অবৈধ ও ঝুঁকিপূর্ণ দোকানপাট, খাবার হোটেল, ছাত্রাবাস, বস্তি ও মুদি দোকান তৈরি করে ভাড়া আদায় করছে এবং এই স্থাপনাটিকে একটি অপরাধীদের স্বর্গরাজ্যে পরিণত করেছে। এখানকার অরাজকতার সুযোগ নিয়ে ২০১২ সালে এই কোর্ট বিল্ডিং এলাকায় জঙ্গি হামলাও হয়েছিল বলেও প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

ইট পাথরের জঞ্জালে পরিণত করা হয়েছে ঐতিহাসিক এই পাহাড়টিকে। এটিকে রক্ষা করে পরীর পাহাড়কে পরীর পাহাড়ের মতো করার জন্য নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করে তাই মন্ত্রী পরিষদ বিভাগকে অবহিত করার জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।
চট্টগ্রামের পরীর পাহাড় থেকে সব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা প্রসঙ্গে বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ কামরুল হাসান বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অবশ্যই অনুসরণ করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম