1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
মাগুরার শ্রীপুরে নিখোঁজের ১ মাস পর পিকুল বিশ্বাস নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ - দৈনিক শ্যামল বাংলা
বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ০৩:৫৩ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
নবীনগরে কোটাপদ্ধতি সংস্কারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ মিছিল রাউজানে তিনদিন ব্যাপী বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন রাউজানে ৬০ প্রজাতির ১ লাখ ৮০ হাজার ফলজ ও ঔষধি গাছের চারা রোপন কর্মসূচি উদ্বোধন মাগুরায় নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান শরিয়াতউল্লাহ হোসেন রাজনকে গণসংবর্ধনা প্রদান  *জরুরী রক্ত প্রয়োজন*রক্তের গ্রুপ: AB+ (এবি পজেটিভ) ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে চৌদ্দগ্রামে তিন ছাত্রলীগ নেতার পদত্যাগ কক্সবাজারে সাংবাদিকদের উপর আ’লীগ-ছাত্রলীগের হামলা সারাদেশে ছাত্রসমাজের উপর মর্মান্তিক হামলার প্রতিবাদ ও কোটা সংস্কারের এক দফা দাবিতে দোহাজারীতে বিক্ষোভ মিছিল  এমএসআর’র ১ কোটি ২৬ লক্ষ টাকা লুটপাট সমস্যায় জর্জরিত চট্টগ্রামের চন্দনাইশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স-অধিকাংশ চিকিৎসক অনুপস্থিত থাকেন নবীনগরে কুতুবিয়া দরবার শরীফে শাহাদাতে কারবালা মাহফিল অনুষ্ঠিত

মাগুরার শ্রীপুরে নিখোঁজের ১ মাস পর পিকুল বিশ্বাস নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ৪ এপ্রিল, ২০২০
  • ১৩১ বার

মোঃ সাইফুল্লাহ : মাগুরার শ্রীপুর উপজেলায় নিখোজের ১ মাস পর পিকুল বিশ্বাস(৩৮) নামে ১ যুবকের গলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল ৩ মার্চ শুক্রবার গভীর রাতে (শনিবার)উপজেলার ৫ নংদ্বারিয়াপুর ইউনিয়নের চরমহেশপুর গ্রামের কাজী মোশাররফ হোসেন নামের এক ব্যক্তির বাড়ির আঙিনা খুঁড়ে তাঁর এ লাশ উদ্ধার করা হয়।
পুলিশ সুপারের কার্যালয় সূত্র জানায়, বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কের জেরে তাঁকে হত্যার পর লাশ পুঁতে রাখা হয়েছিল বলে ধারণা করা হচ্ছে।
নিহত পিকুল হোসেন (৩৮) উপজেলার চৌগাছি গ্রামের উকিল বিশ্বাসের পুুত্র।
পিকুলের ভাই দিপুল বিশ্বাস জানান, গত ২ মার্চ বিদেশগামী এক বন্ধুকে ঢাকা বিমানবন্দরে পৌঁছে দিতে গিয়েছিলেন পিকুল। সেখান থেকে ওই দিন রাতে তিনি গাজীপুরের কাশিমপুরে বোনের বাসায় যান। পরদিন ৩ মার্চ তিনি গাজীপুর থেকে বাড়িতে ফেরার পথে নিখোঁজ হন। সেদিন থেকেই তাঁর মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। এমন পরিস্থিতিতে শ্রীপুর থানায় বিষয়টি জানালে থানা থেকে তাঁদের গাজীপুরে মামলা করতে বলা হয়। পরে ৭ মার্চ গাজীপুরের কাশিমপুর থানায় নিখোঁজের একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়।
মাগুরা পুলিশ সুপার কার্যালয় সূত্র আরও জানায়, তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে নিখোঁজ পিকুল হোসেনের মোবাইল ফোনের কললিস্ট বের করে পুলিশ। সেখানে দেখা যায়, মোবাইল বন্ধ হওয়ার আগে এক নারীর সাথে দীর্ঘক্ষণ কথা বলেছিলেন পিকুল। পরে পুলিশ খোঁজ নিয়ে জানতে পারে, ওই নারী বিবাহিত। গতকাল পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে হত্যা ও লাশ গুমের কথা স্বীকার করেন ওই নারী ও তাঁর স্বামী।

মাগুরার পুলিশ সুপার খান মুহাম্মদ রেজোয়ান জানান, বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কের জেরেই এই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। পুলিশ সুপার বলেন, জিজ্ঞাসাবাদে ওই দম্পতি জানিয়েছেন, পিকুলকে কৌশলে ডেকে এনে ঘুমের ওষুধমিশ্রিত দুধ খাওয়ানো হয়। পরে তাঁকে হত্যা করে বাড়ির আঙিনায় টিউবওয়েলের পাশে মাটিচাপা দেন তাঁরা। তাঁদের দেওয়া তথ্য অনুসারে গতকাল রাতে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ। এ অভিযোগে শ্রীপুর থানায় হত্যা ও লাশ গুমের একটি মামলা হয়েছে। সেই মামলায় ওই নারী ও তাঁর স্বামীকে গ্রেপ্তার দেখিয়েছে পুলিশ।এদিকে শ্রীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃমাহবুবুর রহমান জানান- জিজ্ঞাসাবাদে মোশাররফ হোসেন তিিন বছর আগে কাতার প্রবাসী ছিলেন, এই সুুুযোগে তার স্ত্রীর সাথে পিকুল বিশ্বাসের অনৈতিক সম্পর্ক হয়,বিষয়টি নিয়ে স্বামী – স্ত্রীর মধ্যে দাম্পত্য কলহ চলে আসছিল। গত ৩ মার্চ স্বামীর আস্হা অর্জনের জন্য রাজিয়া পিকুলকে নিজের বাড়ীতে ডেকে নিয়ে আসে, সেখানে তাকে ঘুমের ওষুধ খাওয়ানো হয়, এরপর স্বামী- স্ত্রী মিলে ঘুমন্ত অবস্থায় দা দিয়ে জবাাই করে পিকুলকে হত্যা করে। পরে রক্ত মাখা কাপড়সহ উঠানে টিউবলের পাাশে একটি গর্তে মাটি চাপা দেয় তারা৷ শুক্রবার দিিবাগত (শনিবার)রাত দেড়টার দিকে সেখান থেকেই মরদেহ উদ্ধার করে তারা।এ ব্যাপারে থানায় একটি মামলা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম