বৃহস্পতিবার, ১৭ Jun ২০২১, ১২:১৪ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনামঃ
হত্যাকান্ডের ৯ দিন পর খুনিকে গ্রেপ্তার করেছে র্্যাব মাগুরা শ্রীপুরের জনপ্রিয় শিক্ষক আমিরুজ্জামান সেলিমের ইন্তেকাল বাকলিয়ার সন্ত্রাসী এয়াকুবসহ চিহ্নিত অস্ত্রধারীদের গ্রেফতার দাবি চট্টগ্রামে বায়েজিদ লিংক রোডে ঝুঁকিপূর্ণ ভাবে পাহাড়ের বসতিদের উচ্ছেদ অভিযান শুরু পরীমণিকে ধর্ষণচেষ্টায় নাসির উদ্দিন গ্রেফতার রাউজানের গণি পাড়ার মেয়ে কিংবদন্তি শাবানার গ্রামের বাড়িতে বছরে পর বছর ঝুলছে তালা র‌্যাব ক্যাম্পের অভিযান : দুই মাদক কারবারি আটক সদ্য নবনির্বাচিত দিনাজপুর চেম্বারের রেজা হুমায়ুন ফারুক চৌধুরী (শামীম) পরিষদের বিজয়ীদের ফুলেল শুভেচ্ছা জানালো পরিবেশক সমিতি দিনাজপুর কোম্পানীগঞ্জে সিএনজি ধর্মঘটের ঘোষণা পৌর মেয়র কাদের মির্জা’র চট্টগ্রামের বাকলিয়ার এয়াকুব আলী বাহিনীর চিহ্নিত অস্ত্রধারীদের অস্ত্র উদ্ধারের দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন

তাবলীগে এসে অচেতন পার্টির খপ্পরে, মালামাল ছিনতাই, চিকিৎসাধীন – ১৪

মনিরুজ্জামান, ভোলাঃ

ভোলার বোরহানউদ্দিনে তাবলীগ জামায়াতে আসা ব্যক্তিদের চেতনানাশক ঔষধ খাইয়ে নগদ অর্থ ও মালামাল ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে ৷
শনিবার (২৯ মে) দিবাগত রাতে উপজেলার কুতুবা ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের চৌকিদার বাড়ি জামে মসজিদে এঘটনা ঘটে৷

এসময় নগদ আনুমানিক দেড় লক্ষ টাকা, সকলের মোবাইল ফোন, চার্জার, লাইট ও অন্যান্য ব্যবহার্য মালামাল নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা ৷ এতে ১৪ জন ব্যক্তি অচেতন হন ৷ তাদের মধ্যে বোরহানউদ্দিন হাসপাতালে ১১ জন ও ভোলা সদর হাসপাতালে ৩ জন চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৷ জানাযায় তাদের সকলের বাড়ী নেত্রকোনা জেলার বারহাট্টা উপজেলায়৷

জামায়াতের আমীর হাজী মোহাম্মদ মুসলিম উদ্দিন জানান, শুক্রবার (২৮ মে) তিনি সহ ১৫ জন তাবলীগের সাথী নিয়ে ঢাকা কাকরাইল মসজিদ থেকে ভোলার বোরহানউদ্দিনের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন তারা । শনিবার (২৯ মে) বোরহানউদ্দিন মাখরাজ মসজিদে এসে পৌছালে সেখান থেকে কুতুবা ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের চৌকিদার বাড়ি জামে মসজিদে তাদেরকে পাঠানো হয়। তিনি আরো জানান, ওই দিন রাতে এশার নামাজ আদায় শেষে খাওয়া দাওয়া শেষ করে সকলে ঘুমিয়ে যাই। ফজর নামাজের ওয়াক্ত হলে আমার ঘুম ভাঙ্গলে তাদেরকে ডাকাডাকির এক পর্যায়ে বুঝতে পারি আমাদের সাথী ভাইয়েরা সকলে অচেতন হয়ে আছে।

পরে আমি সহ স্থানীয়রা আমাদের ১৪ জন সাথীকে উদ্ধার করে বোরহানউদ্দিন হসপিটালে নিয়ে যাই। অবস্থা খারাপ দেখে তাদের মধ্যে ৩ জনকে ভোলা সদর হাসপাতালে নেয়া হয়েছে ৷ এসময় নগদ আনুমানিক দেড় লক্ষ টাকা, সকলের মোবাইল ফোন, চার্জার, লাইট ও অন্যান্য ব্যবহার্য মালামাল দুর্বৃত্তরা নিয়ে যায় বলে জানান তিনি ৷

বোরহানউদ্দিন হাসপাতাল সূত্র জানায়, রবিবার সকালে স্থানীয়রা ১৪ জন ব্যক্তিকে অচেতন অবস্থায় আমাদের কাছে আসেন ৷ তাদের মধ্যে ৩ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক মনে হলে তাদেরকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ভোলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

রাতের খাবারের সাথে নেশা জাতীয় দ্রব্য মিশিয়ে খাইয়ে এমন এঘটনা ঘটাতে পারে বলে ধরনা করছেন স্থানীয়রা ৷ এর সাথে কে বা কারা জড়িত তা জানাযায়নি ৷
উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাইফুর রহমান মুঠোফেনে জানান, অভিযোগ পেলে বিষয়টা খতিয়ে দেখছি।
বোরহানউদ্দিন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মাজহারুল আমিন জানান, তাবলীগ জামায়াতের পক্ষ থেকে এখনো কোন অভিযোগ করা হয়নি ৷ অভিযোগ পেলে আমরা প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

নিউজটি শেয়ার করুন..

© All rights reserved © 2022 TechPeon.Com
Design & Developed BY TechPeon.Com