1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. nrghor@gmail.com : Nr Gh : Nr Gh
  3. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
রাউজানে জলপথে অবৈধভাবে বাশেঁর ছালির মাধ্যমে লাখ লাখ ঘনফুট কাঠ পাচার - দৈনিক শ্যামল বাংলা
বুধবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৪৯ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
নবীগঞ্জে মহিলালীগের উদ্যােগে প্রধানমন্ত্রীর ৭৫ তম জন্মদিনে কেক কাটলেন এমপি মিলাদ গাজী নবীগঞ্জ উপজেলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন উপলক্ষ্যে ১৯ হাজার করোনা টিকা প্রদান শেখ হাসিনার জন্ম না হলে বাংলাদেশ উন্নয়নের মডেল হিসেবে স্বীকৃতি পেত না : নজরুল ইসলাম এমপি নবীগঞ্জে সুষ্টভাবে শারদীয় দুর্গাপুজা পালনে থানা পুলিশের বিশেষ আইন শৃংখলা সভা অনুষ্টিত মাগুরার শ্রীপুরে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের উদ্যোগে প্রধান মন্ত্রীর ৭৫তম জন্মদিন পালন প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে চট্টগ্রাম উত্তর জেলা যুবলীগের খাবার বিতরণ ও দোয়া মাহফিল নাঙ্গলকোটের বাঙ্গড্ডা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর ৭৫তম জন্মদিন পালিত রাঙ্গুনিয়া কলেজে ছাত্রলীগের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন চট্টগ্রাম চন্দনাইশে প্রধানমন্ত্রীর জন্ম দিবস উপলক্ষে যুবলীগের র‍্যালি চট্টগ্রাম চন্দনাইশে জ্বর ও নিউমোনিয়ার প্রাদুভার্ব

রাউজানে জলপথে অবৈধভাবে বাশেঁর ছালির মাধ্যমে লাখ লাখ ঘনফুট কাঠ পাচার

রাউজান প্রতিনিধি:
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১৩ বার

অবৈধ বাশঁ-কাঠ পাচারের হাট হিসাবে পরিচিত রাউজানের গহিরা কালাচাঁদ হাট। প্রতিদিন সর্তা খাল দিয়ে অবৈধ ভাবে বাশেঁর ছালির মাধ্যমে লাখ লাখ ঘনফুট কাঠ আসে গহিরা কালাচাঁদ হাটে। বিশেষ কায়দায় জলপথে আসা কাঠ ও বাশঁ পাচার হয় এখান থেকে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে। জানা যায়, খাগড়াছড়ি জেলার দুর্গম পাহাড়ি এলাকা রক্তছড়ি ও ব্রক্ষ্মাছড়ি থেকে ফটিকছড়ি হয়ে সর্তার খাল দিয়ে উজানের পানি পথে গহিরা কালাচাঁন্দ হাটের কাঠ পাচারের অবৈধ ডিপোতে আসে। খাগড়াছড়ি ও ফটিকছড়ি বন বিভাগকে ম্যানেজ করে সরকারী গাছ কেটে এখানে নিয়ে আসে একটি গাছ চোরাই সেণ্ডিকেট। এই সেণ্ডিকের সাথে রয়েছে রাউজান, ফটিকছড়ি ও খাগড়াছড়ি জেলা উপজাতিয় চক্র। সূত্র জানায়, একদিকে গভীর রাতে বন বিভাগের গাছ কেটে উজার করছে তারা। অপর দিকে সরকারী রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে বীরদর্পে কাঠ ব্যবসায়ী সেজে সমাজপতি হচ্ছে তারা। সরেজমিনে গহিরা কালাচাঁদ হাটের অবৈধ বাশঁ কাঠ ডিপো পরিদর্শন কালে দেখা গেছে, গহিরা সর্তার খালের দুই প্রান্তে রয়েছে ৮/১০টি করাত কল (স’ মিল)। করাত কল গুলোতে সারিবদ্ধ ভাবে স্তুপ করা হয়েছে চোরাই পথে আনা সেগুন, গর্জন, কড়াই, আকাশ মনি ও গামারী গোল কাঠ। এছাড়া সর্তার খালের পাড় দখল নিয়ে বিক্রির জন্য স্তুপ করে রেখেছে পাচারকারীরা। সেখান থেকে পুলিশ ও বন বিভাগকে ম্যানেজ করে ট্রাকে ট্রাকে দ্বিতীয় দফায় কাঠ পাচার হয় ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে। এছাড়া অবৈধ বাশঁ-কাঠ পাচারের হাট হিসাবে পরিচিত রাউজানের গহিরা কালাচাঁদ হাটে গড়ে উঠেছে শতাধিক ফার্ণিচারে দোকান। এসব দোকান ও করাত কলের কোন বৈধ কাগজপত্র নেই বলে জানা গেছে। দীর্ঘ দিন ধরে অবৈধ পন্থায় বন বিভাগকে বৃদ্ধা আঙ্গুল প্রদর্শন করে গহিরায় জমজমাট অবৈধ কাঠ ব্যবসা প্রসঙ্গে রাউজান উপজেলা বন কর্মকর্তা ও ঢালার মূখ স্টেশনে চেক ফরেস্টার আইয়ুব আলী মন্ডল বলেন, আমি নতুন জয়েন্ট করেছি রাউজানে। এখনো সবকিছু অজানা। এছাড়া সর্তার খাল হয়ে গহিরাতে কাঠ পাচার বিষয়টি আমি জানতাম না। তবে আমি বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে দেখব। এ ব্যাপারে অভিযান পরিচালনা করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম