1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
খুটাখালীতে সম্পত্তির লোভে বৃদ্ধা মাকে মারধর, চলাচল পথ বন্ধ করে দেয়ার অভিযোগ! - দৈনিক শ্যামল বাংলা
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ১১:১৬ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
নবীনগরে কোটাপদ্ধতি সংস্কারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ মিছিল রাউজানে তিনদিন ব্যাপী বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন রাউজানে ৬০ প্রজাতির ১ লাখ ৮০ হাজার ফলজ ও ঔষধি গাছের চারা রোপন কর্মসূচি উদ্বোধন মাগুরায় নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান শরিয়াতউল্লাহ হোসেন রাজনকে গণসংবর্ধনা প্রদান  *জরুরী রক্ত প্রয়োজন*রক্তের গ্রুপ: AB+ (এবি পজেটিভ) ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে চৌদ্দগ্রামে তিন ছাত্রলীগ নেতার পদত্যাগ কক্সবাজারে সাংবাদিকদের উপর আ’লীগ-ছাত্রলীগের হামলা সারাদেশে ছাত্রসমাজের উপর মর্মান্তিক হামলার প্রতিবাদ ও কোটা সংস্কারের এক দফা দাবিতে দোহাজারীতে বিক্ষোভ মিছিল  এমএসআর’র ১ কোটি ২৬ লক্ষ টাকা লুটপাট সমস্যায় জর্জরিত চট্টগ্রামের চন্দনাইশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স-অধিকাংশ চিকিৎসক অনুপস্থিত থাকেন নবীনগরে কুতুবিয়া দরবার শরীফে শাহাদাতে কারবালা মাহফিল অনুষ্ঠিত

খুটাখালীতে সম্পত্তির লোভে বৃদ্ধা মাকে মারধর, চলাচল পথ বন্ধ করে দেয়ার অভিযোগ!

কক্সবাজার প্রতিনিধি।
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ২৬ এপ্রিল, ২০২২
  • ১৯৪ বার

পৈত্রিক সম্পত্তি লিখে নিয়ে ৬০ বছরের অসুস্থ বৃদ্ধা মা গোলবাহার বেগমকে মারধর করে চলাচল পথ বন্ধ করে দিয়েছে বড় ছেলে ও তার সন্তানরা। পরে আশপাশের লোকজন নির্যাতনের শিকার ওই বৃদ্ধাকে উদ্ধার করে চকরিয়া সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করেন। এ ঘটনায় বাঁধা দিতে গিয়ে ঐ বৃদ্ধার ছোট ছেলে,কন্যা ও তার জামাতা মারধরের শিকার হয়েছেন।

গত ২২ এপ্রিল ঘটনাটি ঘটেছে চকরিয়া উপজেলার খুটাখালী ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ড মাইজপাড়া গ্রামে।

এ ঘটনায় বৃদ্ধা গোলবাহার বাদী হয়ে পরদিন চকরিয়া থানায় ৪ জনকে অভিযুক্ত করে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। এতে একই এলাকার মৃত আলী হোছনের পুত্র সাদি আলম মেস্ত্রি (৪৫), তার স্ত্রী রোজিনা আকতার (৪০) তার পুত্র সায়েম (২০) ও মোঃ তামিমকে (১৮) অভিযুক্ত করা হয়েছে। যা বর্তমানে থানার এসআই সারোয়ারের নিকট তদন্তনাধিন রয়েছে।

হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে বৃদ্ধা গোলবাহার বেগম বলেন, বিগত ২৫ বছর পুর্বে তার স্বামী আলী হোছন মারা যান। এরপর বসতবাড়ির মোট ১৬ কড়া জমি ২ সন্তানকে ভাগ করে দিই। ভাগজাত অংশে উভয়ে বাড়িঘর করে শান্তিপূর্ণ ভাবে বসবাস করলেও বড় সন্তান সাদি আলম মেস্ত্রি (৪৫) ছোট ছেলে মনজুর আলমকে তার অংশ থেকে উচ্ছেদ করতে নানা পায়তারা ও ষড়যন্ত্র শুরু করেন। এমনকি সাদি আলম মেস্ত্রি তাকে ভরণপোষণের আশ্বাস দিয়ে ওই সম্পত্তি ভাগ করে নেয়ার পর তার (মাকে) ভরণপোষণ দেয়া তো দুরের কথা চলাচলে পথে বাঁধা প্রয়োগ করে।

দীর্ঘদিন ধরে নানা নির্যাতন সহ্য করে আসলেও সম্প্রতি সময়ে ছোট ছেলে মনজুরের বসতভিটা অংশে চলাচল পথ বন্ধ করে পাকা পিলার ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়ে প্রায় ৪ লাখ টাকার ক্ষতিসাধন করে বলে তিনি অভিযোগে উল্লেখ করেন।

তবে এসব কাজের প্রতিবাদ জানান ছোট ভাই মনজুর আলম। প্রতিবাদ করার কারণে তাদের উপর ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে সাদি আলম মেস্ত্রি। এরই ধারাবাহিকতায় মা-ছেলেকে ঘর থেকে উচ্ছেদ করার উদ্যোগ নেয় সে। বিষয়টি নিয়ে গ্রাম্য সালিস বৈঠক ডাকা হয়। কিন্তু কারো কোনো কথাই মানতে নারাজ সাদি আলম মেস্ত্রি।

বৃদ্ধা গোলবাহার আরো বলেন, ভরণপোষণ ও চিকিৎসা খরচ চালায় ছোট ছেলে মনজুর আলম। সাদি আলম কোন খবরা-খবর নেয় না। এমনকি রাত-দিন গালি গালাজ করে আমাকে বাড়ি থেকে বের হয়ে যাওয়ার জন্য বলছে।

গত ২২ এপ্রিল সাদি আলম ও তার ছেলেরা মিলে মনজুর আলমের চলাচল পথ বন্ধ করে দেয়। ভেঙ্গে ফেলে পাকা পিলারসহ স্থাপনা। এতে বাঁধা দেয়া হলে সাদি আলম তার স্ত্রী ছেলে নিয়ে আমাকে মারধর করে। একপর্যায়ে আমাকে প্রাণে বাঁচাতে ছেলে মনজুর, কন্যা রুমা আকতার (গর্ভবতি) ও তার জামাতা বোরহান উদ্দিন এগিয়ে আসলে তাদেরকে পিঠিয়ে মারাত্মক জখম করে। এসময় সাদি আলম ও তার সন্তানরা আমাকে জোরপূর্বক বাড়ি থেকে বের করে দেয়। স্বামীর স্মৃতিবিজড়িত বসতবাড়ি থেকে যেতে না চাইলে আমাকে মারধর করতে থাকে। স্থানীয় লোকজন এসে আমাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন।

এ দিকে মারধরের কথা অস্বীকার করে ছেলে সাদি আলম বলেন, বসতভিটার ভাগজাতনামা করা হয়েছে। তবে ছোট ভাই মনজুর আলম তা মানছেন না। তিনি মা-ভাইয়ের পাল্লায় পড়েছেন জানিয়ে বলেন এ নিয়ে ঝগড়া-বিবাদ হয়েছে মাত্র।

চকরিয়া থানার তদন্ত দায়িত্বে থাকা এসআই সারোয়ার ঐ ঘটনায় অভিযোগ পাওয়ার কথা স্বীকার করে বলেন, আহত ও অসুস্থ বৃদ্ধাকে হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে জেনেছি। অভিযোগটি তদন্ত করে আইন অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম