1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
সাড়ে ৩০০ বছরের ঐতিহ্য বয়ে চলছে তিতাসের গাজীপুরের মেলা - দৈনিক শ্যামল বাংলা
বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১২:৫১ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
নবীনগরে কোটাপদ্ধতি সংস্কারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ মিছিল রাউজানে তিনদিন ব্যাপী বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন রাউজানে ৬০ প্রজাতির ১ লাখ ৮০ হাজার ফলজ ও ঔষধি গাছের চারা রোপন কর্মসূচি উদ্বোধন মাগুরায় নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান শরিয়াতউল্লাহ হোসেন রাজনকে গণসংবর্ধনা প্রদান  *জরুরী রক্ত প্রয়োজন*রক্তের গ্রুপ: AB+ (এবি পজেটিভ) ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে চৌদ্দগ্রামে তিন ছাত্রলীগ নেতার পদত্যাগ কক্সবাজারে সাংবাদিকদের উপর আ’লীগ-ছাত্রলীগের হামলা সারাদেশে ছাত্রসমাজের উপর মর্মান্তিক হামলার প্রতিবাদ ও কোটা সংস্কারের এক দফা দাবিতে দোহাজারীতে বিক্ষোভ মিছিল  এমএসআর’র ১ কোটি ২৬ লক্ষ টাকা লুটপাট সমস্যায় জর্জরিত চট্টগ্রামের চন্দনাইশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স-অধিকাংশ চিকিৎসক অনুপস্থিত থাকেন নবীনগরে কুতুবিয়া দরবার শরীফে শাহাদাতে কারবালা মাহফিল অনুষ্ঠিত

সাড়ে ৩০০ বছরের ঐতিহ্য বয়ে চলছে তিতাসের গাজীপুরের মেলা

মোঃ জুয়েল রানা, তিতাস প্রতিনিধি:
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩
  • ৮৭ বার

কুমিল্লার তিতাসে শুরু হয়েছে প্রায় সাড়ে তিন’শ বছরের পুরোনো ঐতিহ্যবাহী গাজীপুরের মেলা। আধ্যাত্মিক সাধক হযরত পীর শাহবাজ (রহ.) এর ওরশ উপলক্ষে শনিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) থেকে এ মেলা শুরু হয়। চলবে সোমবার গভীর রাত পর্যন্ত। ৩দিন ব্যাপী এ মেলায় রকমারি পণ্য ছাড়াও বাঙালির ঐতিহ্য কুস্তিখেলায় দৃষ্টি কাড়ছে দর্শনার্থীদের।

বাউল সাধকদের আধ্যাত্মিক গান ও সুরের মূর্ছনায় মেলা প্রাঙ্গণে তৈরি হয়েছে এক ভিন্ন আবহ। মেলা ঘিরে উৎসবের আমেজ সৃষ্টি হয়েছে পুরো উপজেলা।

জানা গেছে, বঙ্গদেশে ইসলাম ধর্ম প্রচারের উদ্দেশ্যে হযরত শাহজালাল (র.) এর সফরসঙ্গী হিসেবে যে ৩৬০ আউলিয়া এসেছিলেন তাঁদের একজন হলেন, হযরত পীর শাহবাজ (র.)। তিনি হযরত শাহজালাল (র.) এর একজন অনুসারী ও ভক্ত সহচর ছিলেন এবং ওনার নির্দেশক্রমেই তিনি ধর্ম প্রচারের উদ্দেশে এসেছিলেন। ধর্মপ্রচারের পাশাপাশি আত্মশুদ্ধির জ্ঞানদানে হযরত পীর শাহবাজ (র.) অবস্থান নেন কুমিল্লা তিতাস উপজেলার গাজীপুরে। সেখানেই তিনি জিন্দা গায়েব হন। জিন্দা গায়েব হওয়ার পর সেখানে গড়ে ওঠে তার মাজার।

এছাড়াও কথিত আছে তার মাজার শরীফে কয়েকবার বাঘের আবির্ভাব ঘটেছিলো। বাঘের সঙ্গে তার ছিলো পরম বন্ধুত্ব।

প্রতিবছর ১৮,১৯ ও ২০ ফেব্রুয়ারি হযরত পীর শাহবাজ (র.) মাজার প্রাঙ্গণে বাৎসরিক ওরশ উপলক্ষে দেশের বিভিন্ন প্রান্তের মুরিদ ও ভক্তরা এখানে জড়ো হন। এবং মাজার সংলগ্ন গাজীপুর খান সরকারি স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে বসে মেলা। ঐতিহ্যবাহী পুরোনো এ মেলায় ঢল নামে লাখো মানুষের।

সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত নানা শ্রেণি-পেশার মানুষ মেলায় আসছেন প্রিয়জনকে নিয়ে। ঘুরে দেখছেন বাহারি খেলনা, প্রসাধনী, কাঠের আসবাবপত্র, বাঁশ ও বেতের সামগ্রী, জিলেপি, চুড়ি-গহনাসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র। বিনোদনের জন্য রয়েছে সার্কাস, নাগরদোলা ও জাদু প্রদর্শনী।

এছাড়াও মেলার সবচেয়ে বেশী আকর্ষণ হলো বাঙালির চিরচেনা কুস্তিখেলা। মেলার পাশে আলাদা মাঠে প্রতিদিন বিকাল ৩টা থেকে রাত পর্যন্ত চলে এ কুস্তিখেলা।

মেলা পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ফারহাদ আহমেদ ফকির বলেন, গাজীপুর মেলা চিরায়ত বাংলার লোক ঐতিহ্য আর প্রাণের মিলনমেলা। এ এলাকার মানুষের কাছে ঈদের চেয়েও বেশি আনন্দের এ মেলা। মেলা ঘিরে আশপাশের ৫০ গ্রামে বইছে উৎসবের আমেজ। বংশ পরম্পরায় এলাকার মানুষ ঐতিহ্যবাহী এ মেলা উদযাপন করে আসছে। মেলায় রয়েছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় পর্যাপ্ত নিরাপত্তার ব্যবস্থা এবং নারী-পুরুষ ও সকল ধর্ম বর্ণের মানুষ নির্বিশেষে এ মেলায় অংশ গ্রহন করছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম