1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
বিএনপি'র তার অংঙ্গ সংগঠন গুলোর শাখা ভিত্তিক পৃথক দাবী দাওয়ার কাথা শোনা যায় না - দৈনিক শ্যামল বাংলা
রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:২৯ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
নবীগঞ্জে পুলিশের বিশেষ অভিযানে ৩ কেজি ৬০০ গ্রাম গাঁজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার প্রতি বছরের ন্যায় এবারও পর্দা নামল শেখ রাসেল ডেভেলপমেন্ট কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট-অনুর্ধ ১৫ নিজস্ব পিসিএনপির খাগড়াছড়ির জেলা সম্মেলন; সভাপতি ইঞ্জি: লোকমান সম্পাদক এসএম মাসুম রানা উন্নয়নের প্রতিটি আপনারা তদারকি করবেন ফাঁকিবাজদের ছাড় দেবেন না -অর্থ প্রতিমন্ত্রী ওয়াসিকা আয়শা খাঁন ফিলিস্তিনকে রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে বার্বাডোস চৌদ্দগ্রামে সাংবাদিক মীরুকে প্রাণনাশের হুমকির অভিযোগ নবীনগরে মোবাইল কোর্টে এসিল্যান্ডের উচ্ছেদ অভিযান চৌদ্দগ্রামে সড়ক দুর্ঘটনায় ২ যুবক নিহত ঠাকুরগাঁওয়ে নিখোঁজের ২ দিন পরে শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার করেছ পুলিশ চৌদ্দগ্রামে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে জরিমানা ও কারাদন্ড

বিএনপি’র তার অংঙ্গ সংগঠন গুলোর শাখা ভিত্তিক পৃথক দাবী দাওয়ার কাথা শোনা যায় না

এএইচ মোবারক নিজস্ব প্রতিবেদক ঢাকা।
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ৩০ মার্চ, ২০২৪
  • ৬৭ বার

গ্র্যাজুয়েট হোমিওপ্যাথিক ডক্টর অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (জিএইচড্যাব) এর উদ্যোগে। মূলধারা চিকিৎসকার সাথে সরকারী পৃষ্ঠপোষকতায় বিকল্প, সম্মলিত হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসা ব্যবস্থার মূল পরিকল্পনাকারী শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান ১৯৭৭-১৯৮১ ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার রোগমুক্তি, চিকিৎসা শীর্ষক আলোচনা।

এই আলোচ্য বিষয় নিয়ে চিকিৎসা সমাবেশ, আলোচনা সভা ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়

গত ১৮ রমজান, ৩০ মার্চ, ২০২৪ ইং রাজধানীর মিরপুরের দি গোল্ডেন পার্ক থাই চাইনিজ এন্ড পার্টি সেন্টার গ্র্যাজুয়েট হোমিওপ্যাথিক ডক্টর অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (জিএইচড্যাব) এর উদ্যোগে চিকিৎসা সমাবেশ, আলোচনা সভা ও ইফতার মাহফিল ২০২৪ অনুষ্ঠিত হয়। এতে ডাক্তার মোঃ খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে ডাক্তার শাহজালাল এর সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি ছিলেন হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অধ্যাপক সিরাজ উদ্দিন আহমেদ, সদস্য- বিএনপি’র চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদ।
বিষয়ে অতিথি মোয়াজ্জেম হোসেন মতি যুগ্ম আহবার ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি

আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মোয়াজ্জেম হোসেন মতি বলেন আমরা একটি ফ্যাসিস্ট ও সৈরাচারী সরকারের বিরুদ্ধে আন্দলোনের মাধ্যমে ৭ জানুয়ারী ২০২৪ ইং নিবার্চনকে দেশ ও আন্তর্জাতিক ভাবে অ-গ্রহন যোগ্য করে গড়ে তুলতে পারেছি। এটি আমাদের একটি রড় বিজয় আর এই বিজয় কে একটি চুড়ান্ত বিজয়ে রুপান্তরিত করতে আমি বলবো
আমাদের ছাত্র দল, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, কেন্দ্রীয় ছাত্রদল সংসদ, ঢাকা মহানগর উত্তর, দক্ষিণ, পূর্ব, পশ্চিম সহ সারা দেশের ছাত্রদলের সত্যিকার অর্থে ছাত্রদের সমস্যা বলি নিয়ে কথা বলতে শোনা যায় না।

তিনি বলেন এটা একটি সমস্যায় রূপান্তর হয়েছে যে এমন হচ্ছে বিএনপির কেন্দ্রীয় সমাবেশ সফল কারাটাই তাদের কাজ।

ঠিক একই ধরনের কথা বলতে গেলে যুবদলেরও একই ধরনের অবস্থা তারা বিএনপি সমাবেশ সামনের সারিতে গিয়ে স্লোগান দেওয়া। একই ধরনের সেচ্ছসেবক দল, শ্রমিক দল, কৃষক দল, একই ভাবে মহিলা দল।

আমি বলতে চাই ছাত্রদল তাদের শিক্ষঙ্গানে যে শাখায় অবস্থান তাদের স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের সমস্যা বলি নিয়ে দাবী জানাতে হবে। তারা দাবীদাবা নিয়ে আন্দোলন করতে পারে। এমন নয় যে তারা দাবী জানাতে গিয়ে যে রাজপথে ঝাপিয়ে পরতে হব তা নয়।

তিনি বলেন আমারা স্ব-স্ব প্রতিষ্ঠান সংশ্লিষ্ট দপ্তর দাবী জানাতে পারি, আমারা লিফলেট করে বিতরণ করতে পারি , স্মারক লিপি দিতে পারি। সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যাবহার করতে পারি এবং অন্যন ব্যবস্থা অবলম্বন করা যেতে পারে।
সারা বাংলাদশে শিক্ষাঙ্গনে আনেক ধরনের প্রবলেম রয়েছে, আমাদের শিক্ষা উপকরণের দাম বেড়েছে, স্কুল, কলেজ পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় গুলোর বেতনের দাম বেড়েছে, বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয় গুলোর বেতন ও সেশন চার্জ আকাশ চুম্বি, আমাদের ইংলিশ মিডিয়াম স্কুল গুলো উন্নত শিক্ষার নামে আন্তর্জাতিক পর্যায় বেতন ফ্রি নিচ্ছে তারা৷ ছাত্রদল এ বিষয় গুলো নিয়ে তাদের আঙ্গিকে কথা, কাজ করতে পারে।

তিনি আরও বলেন একই ভাবে যুবদল, ছাত্রদের যখন গ্র্যাজুয়েট, মাস্টার্স কমপ্লিট করবে তখন তাদের চাকরী, বাকরি ও কর্মসংস্থান দেশ বেকারত্বের সমসা, যুবসমাজ নিয়ে যুবদলের কি পরিকল্পনা, দেশের যুবসমাজ কিভাবে ধংসের পথে এগুছে, মাদক এ সব বিষয় নিয়ে দেশ সরকার কিছু করছেনা এ বিষয় নিয়ে তাদের দাবী নিয়ে কথা বলতে পারে।
তিনি আরও বলেন দেশের সরকার সেচ্ছাসেবী সংস্থা, সংগঠন, সেচ্ছা সেবকদের কি ভাবে অব মূল্যায়ন করছে, তাাদের আরও সরকারী সুযোগ দেওয়া উচিৎ। বিভিন্ন ফোরামে তাদের এই নিয়ে আলোচনা করা।
দেশ কিভাবে শ্রমিকদের অধিকার বিনষ্ট করছে। তাদের বিষয় শ্রমিক দলের কথা বলা উচিত এবং মহিলাদের অধিকার, সম্মান রক্ষার্থে সরকার কিছুই করছেনা বরং প্রতিমূহুতে অবমূল্যেয়ন করছে।
কৃষক দল কৃষকদের কথা বলবে, সংগঠন ভিত্তিক কর্মসূচী থাকা দরকার।

বলেন এ বিষয় গুলো নিয়ে দলের নীতি নির্ধারকদের চিন্তা ভাবনা ও আলোচনা করা উচিত।

এছাড়াও অন্যান্য বক্তাগণ সরকারের সকল বিষয়ে দুর্নীতি, সকল ক্ষেত্রে আওয়ামী করণের কু-প্রভাব সকল নিয়ে আলোচনা করে এবং তারা এই সরকার হোমিওপ্যাথি বান্ধব বলে জাতীয় কে ধোঁকায় রেখেছে, শিক্ষার মান, কলেজ গুলোর বেহালদাশা, শিক্ষকদের বেতন ও আনুষঙ্গিক কাঠামোর অবস্থা করুন নিয়ে আলোচনা করে।

অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান ও দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া মুক্তি ও রোগ মুক্তির জন্য দোয়া করেন।

এছাড়াও উক্ত আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ও বক্তব্য রাখেন
রুহুল আমিন আকিল (যুবদল সহ-সভাপতি কেন্দ্রীয় কমিটি)। জনাব আলহাজ্ব আমজাদ হোসেন মোল্লা( সদস্য- ঢাকা মহানগর উত্তর)। ডাঃ আরিফুর রহমান মোল্লা (সাবেক সহ-সভাপতি জাসাস কেন্দ্রীয় কমিটি ও উপদেষ্টা (জিএইচড্যাব)। আশরাফুল হোসেন মামুন (সাবেক সদস্য সচিব ছাত্রদল ঢাকা মহানগর পশ্চিম। ডাঃ আল হাসান মোবারক (সদস্য সচিব- হোমিওপ্যাথিক জাতীয় ঐক্য জোট)। সাবেক এজিএস -ফেঃহোঃমেঃকঃ ঢাকা। ডাঃ মোঃ আলী সফি যুগ্ন- আহবায়ক হোমিওপ্যাথিক জাতীয় ঐক্য জোট)। ডাঃ আবুল হাসানাত মোঃ আমিন যুগ্ন- আহবায়ক হোমিওপ্যাথিক জাতীয় ঐক্য জোট)। ডাঃ আবু আক্তার, সাধারণ সম্পাদক ( আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সাংবাদিক সংস্থা ঢাঃমঃউঃ)।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম