1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : naga5000 : naga5000 naga5000
“বাগেরহাটের শরণখোলায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সন্ত্রাসী হামলা” বৃদ্ধ, প্রতিবন্ধী ও বিধবা সহ আহত-৯ - দৈনিক শ্যামল বাংলা
শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ০৬:৫৬ অপরাহ্ন

“বাগেরহাটের শরণখোলায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সন্ত্রাসী হামলা” বৃদ্ধ, প্রতিবন্ধী ও বিধবা সহ আহত-৯

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১০ এপ্রিল, ২০২০
  • ১২৫ বার

নইন আবু নাঈম, বাগেরহাট প্রতিনিধি ঃ
বাগেরহাটের শরনখোলায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সন্ত্রাসী হামলায় একই পরিবারে বৃদ্ধ, প্রতিবন্ধী ও বিধবা এক নারী সহ ৯ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে গুরুতর আহত ৩জনকে শরনখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।
ঘটনাটি ঘটেছে ০৭ এপ্রিল (মঙ্গলবার) অনুমান সকাল ৯টায় উপজেলার নলবুনিয়া (জালিয়াচুড়া) গ্রামে। ঘটনা সূত্র ও অনুসন্ধানে জানা যায়, একই গ্রামের সন্ত্রাসী ফিরোজ শেখ ও তার ভাড়াটিয়া দলবল ধারালো অস্ত্রসহ লাঠি-সোটা নিয়ে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে হাসিনুরের পরিবারের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। পরবর্তীতে খবর পেয়ে হাসিনুরের ছোট ভাই নির্মান শ্রমিক নাছির উদ্দিন তাদের উদ্ধার করে একই দিন সন্ধ্যায় ৩জনকে শরনখোলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।
এ ব্যাপারে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিধবা হাসিনুর বেগম বলেন, গত মঙ্গলবার সকালে পারিবারিক তুচ্ছ একটি বিষয় নিয়ে তার নিকট আত্নীয় ফিরোজ শেখ একাকী আমার সাথে অসৌজন্যমুলক আচরণ সহ শ্লীলতাহানীর চেষ্টা করেন। এ সময় আমার ছেলে হাসানাত শেখ প্রতিবাদ করলে উভয়ের মধ্যে বাক-বিতন্ডতার ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনার জের ধরে একই দিন বিকেল অনুমান ৫টার সময় প্রভাবশালী ও এলাকায় সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের গডফাদার ফিরোজ শেখের নেতৃত্বে ফারুক শেখ, মুছা শেখ, ফোরকান শেখ, আউয়াল শেখ, ঈসা শেখ, আফজাল শেখ সহ ১৫/২০ জনের ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী বাহিনী এক জোট হয়ে হাসিনুর বেগম (৫০), তার প্রতিবন্ধী ভাই সরোয়ার হাওলাদার (৪৫) এবং তার বৃদ্ধ পিতা আজাহার আলী (৮৫)কে এলোপাথাড়ি পিটিয়ে গুরতর জখম করেন এবং হাসিনুর বেগম হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকার সুযোগে পরেরদিন বুধবার সকালে সন্ত্রাসী ফিরোজের সহযোগীরা তার বসত ঘরে হামলা চালিয়ে ভাংচুর ও লুটপাট করেন বলে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগীরা।
উদ্ধারকারী বিধবা হাসিনুরের ছোট ভাই নাসির উদ্দিন বলেন, আমার বোনের বাড়ি ভাংচুর ও লুটপাট করার পরে হাসিনুর, সরোয়ার আজাহার হাসপাতালে কেন আমার কাছে সন্ত্রাসী ফিরোজ শেখ জানতে চায় এবং হাসপাতাল থেকে এখনি বাড়িতে না আনলে এবং বিষয়টি নিয়ে আমাদের বিরুদ্ধে থানা পুলিশ করলে আমাকে সহ আমাদের পরিবারের সকলকে হত্যা করে লাশ গুম করিয়া ফেলিবে বলিয়া হুমকি দেয়। এ ঘটনায় হাসিনুরের পরিবারের সকল সদস্যরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। সন্ত্রাসী ফিরোজ শেখের নেতৃত্বে সন্ত্রাসী দল বিধবা হাসিনুরের বাড়ির সামনে ধারালো অস্ত্র লাঠি-সোটা সহ বাড়ির আশেপাশে প্রকাশ্যে ঘোরাফেরা করছে বলে জানা যায়। সন্ত্রাসী ফিরোজ শেখ প্রভাবশালী হওয়ায় এলাকাবাসী ভয়ে মূখ খুলতে পারছে না এবং সন্ত্রাসী ফিরোজ শেখের ও তার সন্ত্রাসী বাহিনীর হুমকিতে হাসিনুরের পরিবার থানায় আসতে সাহস পাচ্ছেনা।
এ বিষয়ে ফিরোজ শেখ বলেন, আমাদের ২ গ্রুপের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে এটা সত্য। তিনি আরো জানান হাসিনুরের পুত্রবধুর একটি অভিযোগ নিয়ে (মঙ্গলবার) শালিশ বৈঠকে বসলে আমাকে ডাকেন। সেখানে আমার সাথে হাসিনুরের পূত্র হাসনাতের সাথে কথা কাটা কাটি হয় এবং বিষয়টি শুনে আমার পরিবারের লোকজন ক্ষিপ্ত হন। এ নিয়ে দু-পক্ষের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে।
এ ব্যাপারে শরণখোলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস.কে আব্দুল্লাহ আল সাইদ বলেন, কোন গ্রুপের অভিযোগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম