1. nerobtuner@gmail.com : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
  2. info@shamolbangla.net : শ্যামল বাংলা : শ্যামল বাংলা
৩৮ বছর জ্ঞানের আলো বিলিয়ে অবসরে প্রধান শিক্ষক মোঃ আমির ফয়সাল - দৈনিক শ্যামল বাংলা
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ১১:২৫ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
নবীনগরে কোটাপদ্ধতি সংস্কারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ মিছিল রাউজানে তিনদিন ব্যাপী বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন রাউজানে ৬০ প্রজাতির ১ লাখ ৮০ হাজার ফলজ ও ঔষধি গাছের চারা রোপন কর্মসূচি উদ্বোধন মাগুরায় নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান শরিয়াতউল্লাহ হোসেন রাজনকে গণসংবর্ধনা প্রদান  *জরুরী রক্ত প্রয়োজন*রক্তের গ্রুপ: AB+ (এবি পজেটিভ) ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে চৌদ্দগ্রামে তিন ছাত্রলীগ নেতার পদত্যাগ কক্সবাজারে সাংবাদিকদের উপর আ’লীগ-ছাত্রলীগের হামলা সারাদেশে ছাত্রসমাজের উপর মর্মান্তিক হামলার প্রতিবাদ ও কোটা সংস্কারের এক দফা দাবিতে দোহাজারীতে বিক্ষোভ মিছিল  এমএসআর’র ১ কোটি ২৬ লক্ষ টাকা লুটপাট সমস্যায় জর্জরিত চট্টগ্রামের চন্দনাইশ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স-অধিকাংশ চিকিৎসক অনুপস্থিত থাকেন নবীনগরে কুতুবিয়া দরবার শরীফে শাহাদাতে কারবালা মাহফিল অনুষ্ঠিত

৩৮ বছর জ্ঞানের আলো বিলিয়ে অবসরে প্রধান শিক্ষক মোঃ আমির ফয়সাল

রিপোর্টার নাম
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ১৫ জুন, ২০২৪
  • ৯৪ বার

ইব্রাহীম খলিল:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে পৌরসভাধীন ঐতিহ‍্যবাহী ভোলাচং উচ্চ বিদ‍্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আমির ফয়সাল (এম কম, এম এড) উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকতা করে সমাজে শিক্ষার আলো ছড়িয়েছেন।

গত ১৪ জুন তিনি অবসরে যান। তিনি উপজেলার বিটঘর ইউনিয়নের টিয়ারা গ্রামের কৃতিসন্তান। ১৯৮৭ সালে দৌলতপুর আলিম মাদ্রাসায় শিক্ষকতা পেশা শুরু করেন। ১৯৯৩ সালে বিটঘর রাধানাথ উচ্চ বিদ্যালয়ে যোগদান করেন। ২০১৭ সালের ১ আগস্ট ভোলাচং উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক হিসেবে যোগদান করার পর ২০২৪ সালের ১৪ জুন অবসর গ্রহণ করেন।

তিনি নিরলস পরিশ্রম ও প্রশাসনিক কর্মদক্ষতার মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতায় বিদ‍্যালয়ের পরিবেশ, অবকাঠামো ও শিক্ষার মানোন্নয়নে যথেষ্ট ভূমিকা রেখেছেন।

এছাড়াও রয়েছে তার অসাধারণ সাংগঠনিক দক্ষতা। ইতোপূর্বে তিনি বাংলাদেশ মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতি, নবীনগর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শাখার সহ-সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

জানা যায়, বৃটিশ শাসনামলে তার দাদা ও দাদার ছোট ভাই শিক্ষকতা পেশায় ছিলেন বিধায় বাবা ও চাচাদের ইচ্ছা থেকেই তিনি শিক্ষকতা পেশায় আসেন। তাছাড়া এ পেশায় সততা ও সম্মানের সাথে কাজ করার সুযোগ রয়েছে তাই তিনি এ পেশায় আসতে আগ্রহী হন।

অবসর সময়ে তিনি নিজেকে সামাজিক ও শিক্ষামূলক কাজে সম্পৃক্ত রাখতে চান। স্ত্রী সরকারি চাকুরীজীবি এবং একমাত্র মেয়ে কেমেস্ট্রিতে অনার্স-মাস্টার্স সম্পন্ন করে বর্তমানে নরওয়েতে স্বামীর সাথে অবস্থান করছেন।

অনুভূতি প্রকাশ করে তিনি বলেন, তেমন আর্থিক স্বচ্ছলতা না থাকলেও মানুষ গড়ার গুরুত্বপূর্ণ কাজে অংশগ্রহণ করতে পেরে নিজেকে ধন‍্য মনে করছি। তার অসংখ্য ছাত্র-ছাত্রী দেশ বিদেশে সুপ্রতিষ্ঠিত। শিক্ষার্থীদের প্রতি তার পরামর্শ হলো, সুশিক্ষা অর্জন করে আদর্শ মানুষ হতে চেষ্টা করো। দেশ এবং জাতি তোমাদের দিকে তাকিয়ে আছে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

মন্তব্য করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 TechPeon.Com
ডেভলপ ও কারিগরী সহায়তায় টেকপিয়ন.কম