রংপুর জাহাজ কোম্পানির মোরে সন্ত্রাসী হামলার ৪দিন অতিবাহিত হলেও মামলা রেকর্ড হয়নি

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বিশেষ প্রতিবেদকঃ দেশের উত্তরাঞ্চলের ৮টি জেলা নিয়ে গঠিত রংপুর বিভাগ, শুধু তাই নয় ৮টি জেলার প্রান কেন্দ্র রংপুর শহর। বিভাগীয় শহর রংপুর মহানগরীর ব্যস্ততম এলাকা জাহাজ কোম্পানি মোড়। মোড়ে আজাহার প্লাজা মার্কেটের ক্রোকারীজ ব্যবসায়ী আলমগীর হোসেনের ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান । তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ঢুকে একদল সন্ত্রাসী দিনে দুপুরে লোক সমাগমের মাঝে ছুরিকাঘাত ও মারধর করে অফিস কক্ষে ভাংচুর করে নগত টাকা লুটপাট করে নিয়ে ঢ়াওয়ার অভিযোগ উঠেছে। বর্তমানে তিনি রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন।

আহত ব্যাবসায়ী জনাব আলমগীর হোসেন এ প্রতিবেদককে জানান, ১০/১৫ জন যুবক দেশীয় অস্ত্র শস্রে সজ্জিত হয়ে গত ২৯মার্চ সোমবার দুপুর আনুমানিক ১টা হতে ২ ঘটিকার মধ্যে আমার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে এসে আমার দোকানের অফিস চেম্বারে আমাকে একা পেয়ে জাহাঙ্গীর,বাবু,গোলাম মোস্তফা এলোপাতাড়ি মার-ডাং শুরু করে। ঐ সময় আরাফাত তার হাতে থাকা দেশীয় অস্ত্র দ্বারা হত্যার উদ্দেশ্যে মাথায় আঘাত করলে উক্ত আঘাত মাথার উপরে লেগে মাথা ফেটে গুরুতর রক্তাক্ত ও জখম হই। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, আরাফাত আমার অফিস রুমের ক্যাশ বাক্স খুলে কোম্পানিতে ডিডি করার ৫,০০,০০০(পাঁচ লক্ষ টাকা) জোরপূর্বক বের করে নেয়। আরাফাতের সঙ্গীয় মোটা স্বাস্থ্যবান প্রকৃতির দেখলেই চিনতে পারব সে আমার মনিটর, সিসি, ক্যামেরা ইত্যাদি ভাংচুর করে। ওতে ৫০,০০০(পঞ্চাশ হাজার) টাকার ক্ষতি হয়। আমি ঐ অবস্থায় বাঁধা দিতে গেলে, সে আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যে তার দুই হাত দিয়ে আমার গলা চিপে ধরে শ্বাস রুদ্ধ করার চেষ্টা করে। আমি ঐ সময় প্রাণপণ চেষ্টা করে গলা হতে তার হাত সরিয়ে দিয়ে ডাক চিৎকার শুরু করলে অন্যান্য আসামীরা আমাকে পুনরায় মার ডাং শুরু করে।

মারডাংগের এক পর্যায়ে পাশে থাকা শোরুমে ঢুকে জাহাঙ্গীর বিক্রয় ক্যাশ বাক্স হতে জোরপূর্বক আনুমানিক প্রায় ৬৫,০০০(পঁয়ষট্টি হাজার) টাকা বের করে নেয়। আমার বাবা অবস্থা বেগতিক দেখে ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি রতন ও সাংগঠনিক সম্পাদক পাপ্পু মিঞাকে ঘটনার কথা জানালে তারা ঘটনাস্থলে আসতে আসতে আসামীগন তাদের সম্মুখেই বীর দর্পে চলে যায় । আসামীগন এতই দুর্দান্ত প্রকৃতির যে,তারা প্রকাশ্যে দিবালোকে জাহাজ কোঃ মোড়ে আশেপাশে লোকজনের সমাগম সবসময় থাকার সত্বেও ডাচ্ বাংলা ব্যাংক সংলগ্ন আমার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে এসে যেরুপ কার্যকলাপ করেছে তাতে আমি সহ স্থানীয় লোকজন হতবাক ও ভীত সন্ত্রস্থ। আসামীদের কার্যকলাপ ডাকাতি ছাড়া অন্য কোন কিছুই নয়। এইরুপ ঘটনা রংপুর শহরে বীরল এবং জানামতে প্রথম। আসামীগন চলে যাবার সময় প্রকাশ্যে হুমকি দিয়ে বলে যে, তারা যেকোনো কাজ করতে দিধা করে না। এই বিষয়ে কোন ব্যবসায়ী কোন মন্তব্য বা মুখ খুললে তার দোকানেও এই রকম হামলা করা হবে, নিস্তার পাবে না কেউ বলে হুমকি দিয়ে বীরদর্পে চলে যায় ।

পরে ব্যাবসায়ী আলমগীর হোসেনকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন তার পরিবার। আলমগীর হোসেনের স্ত্রী বাদী হয়ে রংপুর মহানগরীর নবাবগন্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। তদন্তের দায়িত্বে থাকা এস আই আমিরুল অভিযোগের ৪দিন অতিবাহিত হলেও মামলা রেকর্ড করেনি বলে ভুক্তভোগী ব্যাবসায়ী আলমগীর হোসেন এ প্রতিবেদককে জানিয়েছেন।

এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে এস আই আমিরুলের সংগে অভিযোগের বিষয়টি জানতে চাইলে এরিয়ে গিয়ে বলেন দেখে জানাচ্ছি বলে ফোন কেটে দেন।


শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.